November 16, 2018

এমপিওভুক্তির দাবিতে ১৮তম দিনে বুভুক্ষু মিছিল: পুলিশের বাঁধা

Demonstration in front of Dhaka Press Club

জুবায়ের হোসেন, ঢাকা থেকেঃ অবস্থান কর্মসূচির ১৮তম দিনে মাধ্যমিক ও উচ্চ মাধ্যমিক স্তরে নিম্ন মাধ্যমিক-মাধ্যমিক বিদ্যালয়, কলেজ, কারিগরি ও মাদরাসার স্বীকৃতিপ্রাপ্ত সকল নন-এমপিও শিক্ষা প্রতিষ্ঠান এমপিওভুক্তির দাবিতে ‘নন-এমপিও শিক্ষা প্রতিষ্ঠান শিক্ষক-কর্মচারী ফেডারেশন’ শূণ্য থালা হাতে বুভুক্ষু মিছিল করতে চাইলে তাতে পুলিশ বাঁধা দেয়।

পুলিশের বাঁধার কারনে তারা প্রেসক্লাবের সামনে শূণ্য থালা নিয়ে শান্তিপূর্ণ প্রতিবাদ কর্মসূচি পালন করেন।

উল্লেখ্য এর আগে শিক্ষক-কর্মচারীরা ২৬-২৭ অক্টোবর কেন্দ্রীয় শহীদ মিনারে ও ২৮-২৯ অক্টোবর জাতীয় প্রেসক্লাবের সামনে শান্তিপূর্ণ অবস্থান কর্মসূচি পালন করেন। তারপর ৩০ অক্টোবর থেকে ৪ নভেম্বর পর্যন্ত লাগাতার ৬ দিন অনশন কর্মসূচি, ১৭তম দিনে মুখে কালো কাপড় বেঁধে প্রতিবাদ কর্মসূচি পালন করেন।

কিন্তু দাবি আদায় না হওয়ায় শিক্ষক নেতৃবৃন্দ আন্দোলন কর্মসূচি অব্যাহত রেখেছেন। আন্দোলনের ১৮তম দিনে সংহতি জানিয়ে বক্তব্য রাখেন, জাতীয় তেল গ্যাস বিদ্যুৎ বন্দর রক্ষা জাতীয় কমিটির সদস্য সচিব অধ্যাপক আনু মোহাম্মদ, সমাজতান্ত্রিক শ্রমিক ফ্রন্টের সহ-সভাপতি আবদুর রাজ্জাকসহ বিভিন্ন নেতৃবৃন্দ।

বক্তারা দীর্ঘ ১৮ দিন পার হলেও সরকারের পক্ষ থেকে কোন সাড়া না পাওয়ায় সরকারের তীব্র সমালোচনা করেন। তারা শিক্ষক-কর্মচারীর এমপিওভুক্তির ন্যায্য দাবি মেনে নিয়ে তাদের শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে ফিরে যাওয়ার ব্যবস্থা গ্রহণের জন্য সরকারের প্রতি আহ্বান জানান। কর্মসূচিতে আন্দোলনরত শিক্ষক-কর্মচারীদের উদ্দেশ্যে বক্তব্য রাখেন সংগঠনের সভাপতি অধ্যক্ষ মোঃ এশারত আলী, সাধারণ সম্পাদক তাপস কুমার কুন্ডু, সহ সভাপতি আলহাজ্ব কাজী মোঃ নুরুল হক, অধ্যক্ষ সাজ্জাদ হোসেন, সিনিয়র যুগ্ম সম্পাদক মোঃ শফিকুল ইসলাম, মহিলা বিষয়ক সম্পাদক মোছাঃ বেলোয়ারা খানমসহ প্রমুখ।

তারা শিক্ষক- কর্মচারীদের দুর্দশা তুলে ধরে সরকারকে নন-এমপিও শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান এমপিওভুক্ত করতে অনুরোধ জনান। সেই সঙ্গে তারা সারাদেশের সকল নন-এমপিও শিক্ষক-কর্মচারীদের ঢাকায় এসে আন্দোলনে সরাসরি যোগদান করে আন্দোলনকে আরো গতিশীল করার আহ্বান জানান।

Related posts