September 19, 2018

হামলার প্রতিক্রিয়ায় মুখর মার্কিন আইনপ্রণেতারা

ঢাকাঃ  ঢাকার গুলশানে ভয়াবহ সন্ত্রাসী হামলার পর প্রতিক্রিয়া জানিয়েছেন আমেরিকার আইনপ্রণেতারা। তাদের অনেকে হামলার নিন্দা জানিয়েছেন ও হতাহতদের প্রতি সমবেদনা জানিয়েছেন। কেউ বা দিয়েছেন সতর্ক প্রতিক্রিয়া। এদের কেউ পরিস্থিতির দিকে সতর্ক নজর রাখার কথা বলছেন। কেউবা আবার এ হামলার ফলে বিশ্বব্যাপী জঙ্গিদের বিরুদ্ধে আরও বেশি পদক্ষেপ নেয়ার প্রয়োজনীয়তা তুলে ধরেছেন। মার্কিন সিনেটের প্রভাবশালী সিনেট কমিটি অন ইন্টিলিজেন্সের নেতৃত্বস্থানীয় সদস্য সিনেটর ডায়ানে ফেইনস্টেইন এক টুইট বার্তায় বলেন, ‘বাংলাদেশের পরিস্থিতির ওপর ঘনিষ্ঠভাবে নজর রাখছি।

আমাদের অবশ্যই আরও সতর্ক হতে হবে, বিশেষ করে ছুটির সপ্তাহান্তের সময়, তার আরেকটি লক্ষণ এটি।’ একই কমিটির চেয়ারম্যান সিনেটর রিচার্ড বার এক টুইটে লিখেছেন, ‘এসব গোষ্ঠীগুলো যেখান থেকে সদস্য সংগ্রহ করে, প্রশিক্ষণ পায় এবং এসব হামলা চালানোর ষড়যন্ত্র করে, তাতে আমাদের অবশ্যই ব্যাঘাত ঘটাতে হবে।’ আরেক সিনেটর মার্ক কির্ক বলেন, এসব হামলার ব্যাপারে আমাদের অবশ্যই সতর্ক হতে হবে। তিনি হতাহতদের পরিবারের প্রতি সমবেদনা জানিয়েছেন। সিনেট ইন্ডিয়া ককাসের কো-চেয়ার জন কর্নিও এ হামলা নিয়ে মন্তব্য করেছেন। রিপাবলিকান কংগ্রেসম্যান কেন বাক টুইট করেছেন, বাংলাদেশ থেকে তুরস্ক বা অরল্যান্ডো, সর্বত্র আমরা আইএস’র বিরুদ্ধে যুদ্ধে লিপ্ত।

ঢাকায় এই ঘৃণিত ঘটনায় আক্রান্তদের জন্য আমার প্রার্থনা। আরেক কংগ্রেসম্যান টিম হুয়েলসক্যামপ এ ব্যাপারে মার্কিন প্রেসিডেন্ট বারাক ওবামার দৃষ্টি আকর্ষণ করে বলেন, ‘আবারও আইএস হামলা, এবার বাংলাদেশে। ওবামা, আপনার পরিকল্পনা কোথায়?’ প্রসঙ্গত, হোয়াইট হাউজের এক কর্মকর্তা জানিয়েছেন, প্রেসিডেন্ট বারাক ওবামাকে এ অবস্থা সমপর্কে ব্রিফ করা হয়েছে। তিনি সংশ্লিষ্টদের নির্দেশ দিয়েছেন হালনাগাদকৃত তথ্য যেন তাকে জানানো হয়। রিপাবলিকান দলের আরেক আইনপ্রণেতা মার্ক মিডোস বলেন, ‘আইএস’র বিরুদ্ধে লড়াইয়ের গুরুত্ব আরেকবার ফুটিয়ে তুললো বাংলাদেশে সন্ত্রাসী হামলা। বর্তমান কৌশল যে অপর্যাপ্ত, তা বুঝতে আমাদের আর কত সময় লাগবে?’ কংগ্রেসম্যান জো ক্রোলি বলেন, ‘বাংলাদেশে ভয়ঙ্কর হামলার ঘটনায় আমি বিধ্বস্ত।

হতাহতদের জন্য প্রার্থনা করছি।’ সিনেটর বব চেসি বলেন, ‘বাংলাদেশ হামলায় আক্রান্ত সবার জন্য প্রার্থনা করছি। আশা করছি সবাই নিরাপদ রইবেন এবং যত দ্রুত সম্ভব সবাইকে খুঁজে পাওয়া যাবে। ঘটনা পর্যবেক্ষণ করবো।’ সিনেটর থম তিলিস বলেন, ‘আমাদের কূটনীতিকরাসহ, বাংলাদেশের সবার জন্য প্রার্থনা করছি।’ কংগ্রেসওম্যান শিলা জ্যাকসন লি টুইট করেছেন, ‘বাংলাদেশের মানুষের জন্য সমবেদনা। সন্ত্রাসীরা জিতবে না।’

কংগ্রেসম্যান মাইক হোন্ডা বলেন, আইএস হামলায় আক্রান্তদের সকলের জন্য তার সমবেদনা।

উৎসঃ   মানব জমিন

Related posts