December 14, 2018

সেই ফাইনালে চোখ ভিজিয়েছিল মুস্তাফিজও!

563
স্পোর্টস ডেস্কঃ   ২০১২ এশিয়া কাপের ফাইনালটাকে ভুলতে পারেননি মুস্তাফিজুর রহমানও। ওটা বাংলাদেশের জন্য এমনই এক ফাইনাল যেটি এখনও বুকের মধ্যে জাগিয়ে তোলে বেদনা। মুশফিকরা সেবার উঠলেন এশিয়া কাপের ফাইনালে। এর পর সেই কান্নাভেজা ২ রানের পরাজয়। মুশফিক-সাকিবদের কান্না কি তাঁর চোখও ভিজিয়েছিল সেদিন?

মিরপুরে পেস ফাউন্ডেশন ক্যাম্পে সুযোগ পেয়েছেন। বাংলাদেশ দলের নেটে নিয়মিত বোলিং করেন। সেদিন ম্যাচটা দেখেছিলেন ঘরে বসেই দেখেছিলেন বাংলাদেশ দলের বাঁহাতি পেসার। জানালেন, ওই হার বিষাদের ছায়া ফেলেছিল তাঁর মনেও, ‘ঢাকায় মামার বাসায় ফাইনালটা দেখেছিলাম। বাংলাদেশ দল ২ রানে হারার পর খুবই খারাপ লেগেছিল। এখন যেমন ম্যাচে হারলে খারাপ লাগে, ওই সময় একই রকম খারাপ লেগেছিল।’

সময় মুস্তাফিজকে দাঁড় করিয়েছে নতুন রোমাঞ্চ আর নতুন চ্যালেঞ্জের সামনে। এবার তিনি বাংলাদেশ দলের অন্যতম সদস্য, মাশরাফি-মুশফিকদের সঙ্গে তিনিও ফাইনালে অধরা জয়ের সন্ধানে নামবেন। আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে পা রাখার পর এই প্রথম বড় একটি টুর্নামেন্টে খেলতে যাচ্ছেন মুস্তাফিজ। ঘরের মাঠে হতে যাওয়া এশিয়া কাপে নিজের সেরাটাই দেওয়ার প্রত্যয় সাতক্ষীরার তরুণের, ‘এশিয়া কাপ প্রথমবারের মতো খেলতে যাচ্ছি। দলে রাখার জন্য নির্বাচক ও কোচকে ধন্যবাদ। এখন চেষ্টা করব নিজের সেরাটা দেওয়ার।’

এশিয়া কাপ খেলতে আসছে ভারতও। এই দলটির নাম শুনলে চোখটা জ্বলজ্বল করে ওঠার কথা মুস্তাফিজের। গত জুনে ভারত-সিরিজ দিয়েই তো তাঁর উত্থান, এরপর আন্তর্জাতিক ক্রিকেটকে নাড়িয়ে দেওয়ার দুর্দান্ত এক গল্প। আবার সেই ভারতের সঙ্গে দারুণ খেলতে তাঁকে কতটা অনুপ্রেরণা দেবে ওই সিরিজটা? উত্তরে পাশ কাটিয়ে যাওয়ার চেষ্টা মুস্তাফিজের, ‘আবার ভারত আসছে, ঠিক আছে। সুযোগ পেলে নিজের সেরাটা দেওয়ার চেষ্টা করব।’

দি গ্লোবাল নিউজ ২৪ ডটকম/রিপন/ডেরি

Related posts