November 20, 2018

শিক্ষাব্যয় পাঁচগুণ বৃদ্ধি নিয়ে অর্থমন্ত্রীর বক্তব্যের প্রতিবাদ

20170404_113555-1রাবি প্রতিনিধি: অর্থমন্ত্রী আবুল মাল আব্দুল মুহিত আগামী বাজেটে পাবলিক বিশ্ববিদ্যালয় ও মেডিকেল কলেজে স্নাতক পর্যায়ে শিক্ষার্থীদের বেতন ৫গুণ বাড়ানোর যে ঘোষণা দিয়েছেন তা প্রত্যাখ্যান করে এর বিরুদ্ধে আন্দোলনের হুশিয়ারী দিয়েছেন বাংলাদেশ ছাত্র ফেডারেশন রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয় শাখা। মঙ্গলবার সকাল ১১টার দিকে বিশ্ববিদ্যালয় কেন্দ্রীয় ক্যাফেটেরিয়ায় এক সংবাদ সম্মেলনে লিখিত বক্তব্যে অর্থমন্ত্রীর বক্তব্যের প্রতিবাদ জানান সংগঠনটির সাধারণ সম্পাদক তমাশ্রী দাস।
ছাত্র ফেডারেশনের রাবি শাখার সদস্য আলী সম্প্রতির সঞ্চালনায় এ সময় তমাশ্রী দাস লিখিত বক্তব্যে বলেন, দেশের মানুষের অক্লান্ত প্ররিশ্রমের ফলে অর্জিত অর্থের যতটা রাষ্ট্রীয় কোষাগারে জমা হয়, তার একটি অংশ মানুষের সুশিক্ষা প্রদানের জন্য ব্যবহৃত হবে এমনটাই কথা ছিল। কথা ছিল শিক্ষা হবে সবার জন্য, অর্থনৈতিক সমীবদ্ধতা সেখানে আসবে না। কিন্তু আমাদের সরকার সেই পথে হাটে নি। তারা বিশ্ব ব্যাংক ও ইউজিসির ২০ বছর মেয়েদী কৌশলপত্রে বর্ণিত পথে হাটার সিদ্ধান্ত নিয়েছে। তারা টাকা যার, শিক্ষা তার এই নীতিতে চলতে চাই। বর্তমান শিক্ষাব্যাবস্থাকে একটি লাভজনক ব্যবসায় পরিণত করতে চাই। এসময় ছাত্রফেডারেশনের সাধারণ সম্পাদক মন্ত্রীর ব্যক্তব্যের প্রতিবাদ জানিয়ে তার বিরুদ্ধে সাধারণ শিক্ষার্থীদেরকে নিয়ে আন্দোলন গড়ে তুলার ঘোষণা দেন।
সংবাদ সম্মেলনে রাবি ছাত্রফেডারেশনের পক্ষ থেকে ৫ দফা দাবি পেশ করা হয়। দাবি গুলো হচ্ছে, অর্থমন্ত্রীকে তার বক্তব্য প্রত্যাহার করতে হবে, ইউজিসির কৌশলপত্র বাতিল করতে হবে, শিক্ষাখাতে জাতীয় বাজেটের ২৫ শতাংশ বরাদ্দ দিতে হবে, ক্যাম্পাস থেকে সন্ধ্যাআইন প্রত্যাহার করতে হবে এবং অবিলম্বে ছাত্রসংসদ নির্বাচন দিতে হবে।
সংবাদ সম্মেলনে আরো উপস্থিত ছিলেন, ছাত্রফেডারেশনের রাবি শাখার সভাপতি কিংশুক কিঞ্জল, সাংগঠনিক সম্পাদক সুমন মোড়ল, রাজনৈতিক শিক্ষা বিষয়ক সম্পাদক মহব্বত হোসাইন মিলন প্রমূখ।

Related posts