September 25, 2018

লোকের স্নানঘরে উঁকি দিতে ভালবাসেন মোদী, মনমোহনকে ‘বর্ষাতি’ কটাক্ষের জবাব রাহুলের

গ্লোবেল নিউজ, ভারত ব্যুরোঃ নয়াদিল্লি:  লোকের স্নানঘরে উঁকি দিতে ভালবাসেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী। মনমোহন সিংহকে বর্ষাতি-কটাক্ষের জবাব এভাবেই দিলেন কংগ্রেস সহ সভাপতি রাহুল গাঁধী। কেউ মন কি বাত করেন, কাজের কথা বলেন না, খোঁচা অখিলেশ যাদবের।

রাহুল এবং অখিলেশ তাদের যৌথ সাংবাদিক বৈঠকের সময় কংগ্রেসের সহ সভাপতি মোদীর উদ্দেশ্যে আক্রমণ শানিয়ে আরও বলেন, প্রধানমন্ত্রী শুধু গুগল সার্চ করতে, রাশিফল দেখতে এবং অন্যের স্নানঘরে উঁকি দিতেই ভালবাসেন। প্রধানমন্ত্রী হিসেবে উনি একেবারেই অসফল। রাহুলের দাবি উত্তরপ্রদেশ বিধানসভা নির্বাচনের ফল থেকেই বড় ধাক্কা পাবেন প্রধানমন্ত্রী।

সম্প্রতি সংসদের ভেতর ও বাইরে কংগ্রেস ও বিজেপির মধ্যে বিভিন্ন ধরনের নরম-গরম মন্তব্যের আদানপ্রদান হচ্ছেই। এরমধ্যে প্রাক্তন প্রধানমন্ত্রী মনমোহন সিংহকে কটাক্ষ করে গত বৃহস্পতিবার মোদী বলেন, তাঁর থেকে শিখতে হয় কীভাবে স্নানঘরে বর্ষাতি পরে স্নান করতে হয়। অর্থাৎ মনমোহনের আমলে একাধিক কেলেঙ্কারি ঘটলেও, তাঁর বিরুদ্ধে কোনও অভিযোগ কখনও ওঠেনি। মোদী বলেন, গত ৩৫ বছরে ভারতীয় অর্থনীতির ওপর বিশাল প্রভাব রয়েছে মনমোহনজি-র। রাজনীতিবিদদের তাঁর থেকে সত্যিই অনেক কিছু শেখা উচিৎ , কীভাবে নিজের আমলে ঘটে যাওয়া সমস্ত দুর্নীতি থেকে নিজেকে রক্ষা করে নিজের গায়ে একটুও দাগ লাগতে দেননি তিনি।

এই কটাক্ষেরই জবাব দিয়ে কংগ্রেস সহ সভাপতি বলেন, মোদীর কাছে সম্প্রতি দেশের মধ্যে ঘটে যাওয়া বিভিন্ন ঘটনা প্রসঙ্গে প্রশ্ন রাখা হয়েছিল। সেই প্রশ্নের উত্তর দিতে না পেরে এধরনের অপ্রাসঙ্গিক মন্তব্য করে লোকের নজর অন্যদিকে ঘোরানোর চেষ্টা  করছেন মোদী। আসলে গত আড়াই বছরে প্রধানমন্ত্রী হিসেবে তিনি নিজের অদক্ষতা প্রতি পদক্ষেপে প্রমাণ দিয়েছেন। রাহুলের দাবি মোদী যখন নির্বাচন জিতে এসেছিলেন, তখন প্রতিশ্রুতি দিয়েছিলেন দেশের দুকোটি জনসাধারণের কর্মসংস্থান করবেন। সেই প্রতিশ্রুতি অনুযায়ী এক শতাংশ মানুষও এখনও চাকরি পাননি। নিজের সমস্ত প্রতিশ্রুতি পূর্ণ কার্যত ব্যর্থ মোদী, তোপ রাহুলের।

এদিকে গতকালই হরিদ্বারে এক জনসভায় কংগ্রেসের দীর্ঘ ইতিহাস, অতীত উল্লেখ করে আক্রমণ করেন মোদী, বলেন নিজেদের মুখে কুলুপ আটুন। নাহলে শিয়রে বিপদ অপেক্ষা করছে।

এম বি ফয়েজ/১৭/৩৭

etx-akhilesh-attack-modi-so-580x395

Related posts