November 13, 2018

রাবিতে ‘চিহ্নমেলা বিশ্ববাংলা’ আগামি ৭ ও ৮ মার্চ

বিশ্ববিদ্যালয় রিপোর্টার: রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ে তৃতীয় বারের মতো অনুষ্ঠিত হতে যাচ্ছে চিহ্নমেলা বিশ্ববাংলা ২০১৬। বাংলা বিভাগের উদ্যোগে আগামি ৭ ও ৮ মার্চ দুই দিন ব্যাপী এই অনুষ্ঠান অনুষ্ঠিত হবে। বৃহস্পতিবার দুপুর ১টার দিকে বিশ্ববিদ্যালয়ের ডীন্স কমপ্লেক্সের কনফারেন্স রুমে সংবাদ সম্মেলনের মাধ্যমে এই তথ্য নিশ্চিত করা হয়।

সংবাদ সম্মেলনে লিখিত বক্তব্যে চিহ্ন নির্বাহী রহমান রাজু বলেন, আগামি ৭ ও ৮ মার্চ দুইদিন ব্যাপী বিশ্ববিদ্যালয়ের শহীদুল্লাহ কলা ভবন চত্বরে দু’দিন ব্যাপী এ মেলা অনুষ্ঠিত হবে। দেশের ও দেশের বাইরের স্বনামধন্য ও প্রতিষ্ঠিত লেখকবৃন্দ এ মেলায় অংশগ্রহন করবেন। মেলায় সর্বমোট ১১০টি ছোট কাগজের স্টল থাকবে এবং তিন শতাধিক লেখক-সম্পাদক উপস্থিত থাকবেন। দু’দিন ব্যাপী সকাল সন্ধ্যা চলবে ছোট কাগজ মেলা। মেলায় প্রদর্শনী, প্রদর্শনী, ক্রয়-বিক্রয় ও মতবিনিময় সভা চলবে বিরতিহীন ভাবে।

মেলার সময়সূচি সম্পর্কে তিনি বলেন, ৭ মার্চ সকাল ১০টায় চিহ্ন মেলার ১৬ বছর পূর্তি বিবেচনায় ১৬টি বেলুন উড়িয়ে ও ঐতিহাসিক ৭ মার্চ বিবেচনায় ৭টি শান্তির পায়রা উড়িয়ে চিহ্নমেলা বিশ্ববাংলার শুভ উদ্বোধন করবেন লেখক আনিসুজ্জামান ও সেলিনা হোসেন। এ সময় অন্যান্যদের মধ্যে উপস্থিত থাকবেন বিশিষ্ট কথা সাহিত্যিক হাসান আজিজুল হক, বাংলাদেশে নিযুক্ত ভারতীয় হাইকমিশনের উপ কমিশনার সনৎ কুমার সাহা, রাবি উপাচার্য প্রফেসর মুহাম্মদ মিজানউদ্দিন, উপ-উপাচার্য চৌধুরী সারোয়ার জাহান, চিহ্ন প্রধান শহীদ ইকবাল প্রমুখ।

মেলার দ্বিতীয় ও শেষ দিনে চিহ্নমেলা বিশ্ববাঙলায় ও সাহিত্যের সৃজনশীল ও মননশীল শ্রেণীতে দুজন সাহিত্যিককে চিহ্নপুরস্কার ২০১৬ প্রদান করা হবে। চিহ্নপুরস্কার হিসেবে থাকবে প্রত্যেকের জন্য নগদ ২৫ হাজার টাকা ও একটি করে সম্মাননা সনদ। এছাড়াও বাংলাদেশ ও ভারতের মোট ৮টি ছোটকাগজকে প্রদান করা হবে চিহ্ন ছোটকাগজ সম্মাননা।

এছাড়াও মেলার শেষ দিন ৮ মার্চে সন্ধ্যা সাড়ে ৭ টায় আনন্দসন্ধ্যা আয়োজনে অংশগ্রহণ করবে মীরাক্কেল চ্যাম্পিয়ন আবু হেনা রনি ও ক্ষুদে গানরাজ পায়েল।

সংবাদ সম্মেলনে চিহ্ন প্রধান শহীদ ইকবাল বলেন, চিহ্ন এ মেলার মাধ্যমে প্রান্তিক এলাকার সাহিত্যিকদের তুলে আনার একটা চেষ্টা করছে। এ মেলায় ১১০টি স্টলের মধ্যে পশ্চিম বাংলা থেকে ২৮ টি ছোটকাগজ এবং ৫৬ জন সম্পাদক-সহসম্পাদকসহ লেখকরা অংশগ্রহণ করবেন। মেলাতে দেশের সব জেলার আলাদা আলাদা স্টল থাকবে।

প্রসঙ্গত, এর আগে দুইবার যথাক্রমে ২০১১ সালে ও ২০১৩ সালে এ মেলার আয়োজন করা হয়। সাহিত্য পত্রিকা চিহ্ন ২০০০ সালে প্রথম প্রকাশিত হয়। লেখালেখি ছাড়াও এখানে ধারাবাহিক পাঠচক্র, রবিবারের আড্ডা বিভিন্ন ধরনের কাজ করে থাকে। গত ১৬ বছরে চিহ্ন ৩০ টি সংখ্যা বের করেছে। সর্বশেষ চলতি বছরের ফেব্রুয়ারিতে বই মেলাতে ৩০তম সংখ্যা বের করা হয়।

ইমদাদুল হক সোহাগ
রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়

Related posts