November 17, 2018

যুবলীগ নেতার বাড়িতে বিয়ের দাবীতে অবস্থান করায় প্রেমিকা গ্রেফতার

মহিনুল ইসলাম, নীলফামারীঃ-বিয়ের দাবিতে প্রেমিকের বাড়িতে অনুপ্রবেশের অভিযোগে দায়ের করা মামলায় প্রেমিকা জোবায়দা আবেদীন জুঁইকে(২১)কে গ্রেফতার করেছে পুলিশ!ইতিমধ্যে তাকে শুক্রবার দুপুরে (১৮ নভেম্বর) আদালতের মাধ্যমে জেলা কারাগারে পাঠানোও হয়েছে!

অভিযোগ উঠেছে প্রেমিক ও যুবলীগ নেতা কৌশলে প্রেমিকাকে মামলা দিয়ে জেলে পাঠিয়ে আট লাখ টাকা যৌতুকে অন্যত্রে বিয়ের আয়োজনের সব ঠিক ঠাকও করে ফেলেছেন।

 এ ঘটনা নিয়ে এলাকা জুড়ে চলছে তোলপাড়।

অভিযোগে জানা গেছে, প্রেমিকা নীলফামারীর ডোমার উপজেলার পাঙ্গা মটুকপুর ইউনিয়নের জয়নাল আবেদীনের মেয়ে জুইয়ের সঙ্গে দীর্ঘ দেড় বছর ধরে প্রেমের সর্ম্পক ছিল একই উপজেলার বামুনিয়া ইউনিয়নের যুবলীগের সভাপতি ও ইউনিয়নের ৫ নম্বর ওয়াডের ইউপি সদস্য তিতাস রহমান বাবুর(২৭)।

বাবু মৌজা বামুনিয়া গ্রামের সাবেক ইউপি সদস্য মশিয়ার রহমানের ছেলে।

 অভিযোগে আরো জানা যায়, প্রেমিক বাবুর অন্যত্রে বিয়ে ঠিক করা হয়েছে জানতে পেরে প্রেমিকা জুঁই গত বুধবার রাত বিষের বোতল সঙ্গে নিয়ে বিয়ের দাবিতে প্রেমিক যুবলীগ নেতা ইউপি সদস্যের বাড়িতে গিয়ে অবস্থা নেন।

প্রেমিকার আগমন প্রেমিক বাবু দেখতে পেরে প্রথমে বাড়িতে থাকলে কৌশলে বাড়ি হতে সঠকে পড়েন।

পরেরদিন বৃহস্পতিবার (১৭ নভেম্বর) দুপুরে  সাংবাদিকরা ঘটনাস্থলে (বাবুর বাড়িতে) গেলে সে সময় প্রেমিকা জুঁই প্রেমিক বাবুর বাড়িতে অভিযোগ করে জানান, গত দেড় বছর আগে থেকে তিতাস রহমান বাবুর সাথে তার প্রেমের সর্ম্পক চলছে। বাবু আমার ইচ্ছার বিরুদ্ধে বিয়ের আশ্বাস দিয়ে একাধিকবার দৈহিকভাবে মেলা মেশা করে একজন নারীর মুল্যবান সম্পদ বলতে যা বুঝায় তার সবটুকুই ভোগ করেছেন ।

এখন আমি বিয়ের কথা বললেই সে আজ নয়তো কাল বলে বলে তাল-বাহানা করতে থাকেন।

কিন্তু আমি গোপনে জানতে পারি -বাবু অন্য কোথাও বিয়ে করার জন্য আট লাখ টাকা যৌতুকে  মেয়ে ঠিক করেছেন! এই খবর পেয়ে প্রেমিক বাবুকে একাধিকবার মোবাইলে কল দিলেও সে রিসিভ না করবার ফলে বুধবার (১৬ নভেম্বর) রাতে বিষের বোতল হাতে  নিয়ে আমি তার বাড়ীতে এসে অবস্থান নিতে বাধ্য হই।

বাবু আমাকে বিয়ে না করলে আমি বিষপানে আত্নহত্যা করতেই বাধ্য হব!

এদিকে ঘটনায় আড়াল করতে প্রেমিক  তিতাস রহমান বাবুর বাবা মশিয়ার রহমান বাদী হয়ে গতকাল বৃহস্পতিবার (১৭ নভেম্বর) সন্ধ্যায় তার ছেলের প্রেমিকা জোবায়দা আবেদীন জুঁই কে আসামী করে ৪৪৮/৫০৬(২) ধারায় ডোমার থানায় একটি মামলা দায়ের করে যাহার মামলা নম্বর( ৯)।সেই মামলায় করা হয়েছে, অবৈধ ভাবে বাদীর বাড়িতে অনুপ্রবেশ করে বিয়ের দাবিতে বিষের বোতল সঙ্গে এনে আত্নহত্যার হুমকী প্রদান করা ।

পুলিশ উক্ত মামলায় রাতেই প্রেমিক তিতাস রহমান বাবুর বাড়িতে অভিযান চালিয়ে প্রেমিকা জুঁইকে গ্রেফতার করে থানায় নিয়ে এসে আজ তাকে জেলা কারাগারে পাঠিয়ে দেন।

ডোমার থানার ওসি আহমেদ রাজিউন রহমান ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে জানিয়েছেন শুক্রবার দুপুরে ওই মামলায় মেয়েটিকে আদালতে পাঠালে আদালত তাকে জেলা কারাগারে প্রেরন করেন।

এদিকে মেয়েটির বাবা সাংবাদিকদের অভিযোগ করে জানান, তিতাস রহমান বাবু যুবলীগ নেতা হওয়ায় সে আমার মেয়ের সর্বনাশ করে উল্টো আমারই মেয়ের নামে স্হানীয় পুলিশ প্রশাসনের যোগসাজসে মামলা দিয়ে কারাগারে পাঠায়।এখন আমি মেয়ের অভিভাবক হয়েও থানায় মামলা করতে গেলে পুলিশ মামলা না নিয়ে আদালতে মামলা করতে বলেন। তাই আমরা নিরউপায় হয়ে আদালতে মামলা দায়েরের প্রস্তুতি নিচ্ছি।

মহিনুল ইসলাম সুজন-নীলফামারী।।

Related posts