September 23, 2018

মোদির কুশপুতুল পোড়াতে গিয়ে দগ্ধ তিন কংগ্রেস কর্মী

ন্যাশনাল হেরাল্ড পত্রিকা মামলা ইস্যুতে ভারতের কেন্দ্রীয় সরকারের বিরোধীতা করে প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদির কুশপুত্তলিকা পোড়াতে এসেছিলেন কয়েকশ’ কংগ্রেস কর্মী। আর সেই আগুনেই দগ্ধ হলেন কর্মীদের কয়েকজন। একজনকে আশঙ্কাজনক অবস্থায় হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।

ন্যাশনাল হেরাল্ড ইস্যুতে মোদি সরকারের বিরুদ্ধে রাজনৈতিক প্রতিহিংসার অভিযোগ এনে সোমবার হিমাচল প্রদেশের প্রতিটি জেলাতে বিক্ষোভ কর্মসূচি নিয়েছিল কংগ্রেস। সেই বিক্ষোভের অংশ হিসেবে এদিন বিকেলে হিমাচল প্রদেশের শিমলাতে প্রধানমন্ত্রীর কুশপুতুল পোড়ানোর তোড়জোড় শুরু হয়। কিন্তু কুশপুতুলে আগুন লাগাতেই আচমকা বিপদ ঘটে।

জানা যায়, মোদির ওই কুশপুতুলটি আয়তনে বেশ বড় ছিল। বিচলির তৈরি ওই কুশপুতুলটিতে প্রথমে পেট্রল ঢালা হয়। এরপর আচমকাই এক কংগ্রেস কর্মী তাতে আগুন লাগিয়ে দেয়। মুহূর্তের মধ্যেই সেই আগুনের হুল্কা লেগে যায় কাছে থাকা কয়েকজন কর্মীর গায়ে। গায়ে আগুন নিয়েই প্রাণ বাঁচাতে তারা দৌড় লাগায়। এরপর আশপাশ থেকে কয়েকজন ছুটে এসে সেই আগুন নেভায়। যদিও এরই মধ্যে এক নারী সহ কংগ্রেসের ৩ জন কর্মী আহত হন। এদের মধ্যে মনোজ অধিকারী নামে এক কংগ্রেস কর্মীর অবস্থা আশঙ্কাজনক। তাঁর শরীরে বেশ কিছু অংশ পুড়ে যায়, তাঁকে স্থানীয় একটি হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। হাসপাতাল সূত্রে খবর আপাতত শঙ্কামুক্ত মনোজ।

বিক্ষোভ দেখাতে গিয়ে যে এই অবস্থার সৃষ্টি হবে তা বোধ হয় কল্পনাতেও ভাবতে পারেনি মোদির কট্টর বিরোধীরা। ওই ঘটনার পরই বন্ধ করে দেওয়া হয় কংগ্রেসের বিক্ষোভ কর্মসূচি।আ

Related posts