November 19, 2018

মাদারীপুরে তলিয়ে যাওয়া ট্রলারটি দুটি লাশসহ উদ্ধার!

অজয় কুন্ডু,
মাদারীপুরঃ
মাদারীপুর সদর উপজেলার উকিলবাড়িতে বৃহস্পতিবার রাত ৮টার দিকে কুমার নদে দু’টি ট্রলারের মুখেমুখী সংর্ঘষে ভানু বালা (৬৫) ও ননি বাড়ৈ (৭০) নামে দুই ব্যক্তির লাশ উদ্ধার করার পরেও এখনো নিখোঁজ রয়েছেন সুচিত্রা বাড়ৈ নামে একজন।

তারা হলেন কলাগাছিয়া গ্রামের ভানু বালা ও রাজৈর আওয়ালা কান্দির ননি বাড়ৈ। এ দুর্ঘটনায় আহত হয়েছে ২০জন।

ফায়ার সার্ভিসের পাশাপাশি শুক্রবার দুপুর ৩টা থেকে বরিশাল ও খুলনা অ লের নৌবাহিনীর ২৩ সদস্যের একটি বিশেষ দল দুর্ঘটনাকবলিত ট্রলারটি উদ্ধার অভিযান শুরু করে। দুই দিন অভিযান চালিয়ে ট্রলারডুবির প্রায় ২২ ঘণ্টা পরে সন্ধ্যা ৬টার দিকে ট্রলারটি উদ্ধার করা হয়। এ সময় ট্রলারের মধ্যে কোনো মরদেহ পাওয়া যায়নি। তবে ফায়ার সার্ভিস জানায়, বাকি নিখোঁজ একজনের লাশ না পাওয়া পর্যন্ত তাদের উদ্ধার অভিযান চলবে।

শ্রীকৃষ্ণের জন্মদিন জন্মাষ্টমী অনুষ্ঠানে শেষে মাদারীপুর থেকে টেকেরহাট ফেরার পথে বিপরীত দিক থেকে আসা অপর ট্রলারের ধাক্কায় কুমার নদে ট্রলারডুবির ঘটনা ঘটে। বৃহস্পতিবার (২৫ আগস্ট) রাত ৮টার দিকে সদর উপজেলার ঘটমাঝি ইউনিয়নের সিদ্দিকখোলা এলাকায় ঘটে এ দুর্ঘটনা। ৪২ জন যাত্রী নিয়ে ট্রলারটি ডুবে গেলে স্থানীয়দের ও ফায়ার সার্ভিসের সহযোগিতায় ৩৯ জন জীবিত ও একজনকে মৃত উদ্ধার করা হয়। এ সময় নিখোঁজ থাকে দুইজন। এরপর শুক্রবার সন্ধ্যায় সদর উপজেলার মস্তফাপুর থেকে আরেক জনের মরদেহ উদ্ধার করে নৌবাহিনী।

মাদারীপুর ফায়ার সার্ভিসের উপ-সহকারী পরিচালক নজরুল ইসলাম জানান, ট্রলার ডুবির ঘটনায় দুজনকে উদ্ধার করা হয়েছে। এ ছাড়া বাকি নিখোঁজ একজনকে খুঁজতে অভিযান অব্যাহত রয়েছে।

নৌবাহিনীর খুলনা অঞ্চলের নৌকমান্ড লেফট্যান্যান্ট কমান্ডার খাজা মাসুম বলেন, নৌবাহিনীর ২৩ সদস্যের বিশেষ টিম ট্রলারটি উদ্ধার করতে সক্ষম হয়।

Related posts