March 21, 2019

মরমী কবি হাসন রাজার মৃত্যুবার্ষিকী আজ

Hasan-Rajaদ্যা গ্লোবালনিউজ২৪ :: মরমী সাধক কবি হাসন রাজার ৯৬তম মৃত্যুবার্ষিকী আজ বৃহস্পতিবার। অনেকটা নিরবেই কাটছে হাসন রাজার এবারের মৃত্যুবার্ষিকী। হাসন রাজার মৃত্যুবার্ষিকী উপলক্ষে শহরে উল্লেখ করার মতো কোন অনুষ্ঠান হচ্ছে না। পারিবারিক কিংবা সরকারিভাবে কোন অনুষ্ঠান আয়োজনের খবরও পাওয়া যায়নি।

হাওর-বাওর ও মেঘালয় পাহাড়ের পাদ দেশের জেলা সুনামগঞ্জ ‘হাসন রাজার দেশ’ হিসাবেই পরিচিত। কিন্তু মরমী এই সাধকের জীবন ও দর্শন কিংবা তার গানের চর্চা প্রাতিষ্ঠানিকভাবে এখানে হয় না বললেই চলে। হাসন রাজার মৃত্যু বা জন্মতারিখ ঘিরে এখানে লালন মেলার মতো সরকারি পৃষ্ট পোষকতায় হাসন মেলারও দাবি রয়েছে স্থানীয় মানুষ এবং হাসন সংগীত চর্চাকারী শিল্পীদের।

‘একদিন তোর হইব রে মরণ রে হাসন রাজা’ ‘মাটির পিঞ্জিরার মাঝে বন্দি হইয়ারে কান্দে হাসন রাজা মন মনিয়া রে’, ‘প্রেমের বান্ধন বান্ধরে দিলের জিঞ্জির দিয়া’, ‘রঙের বাড়ই রঙের বাড়ই রে’, ‘আমি না লইলাম আল্লাজির নাম রে’, ‘লোকে বলে ঘরবাড়ি ভালানা আমার’, আগুণ লাগাইয়া দিলও কুনে হাসন রাজার মনে,’ সহ জনপ্রিয় অসংখ্য গানের জনক হাসন রাজা ১৮৫৪ সালের সালের ২১ ডিসেম্বর সুনামগঞ্জ শহরের লক্ষণশ্রী’র ধনাঢ্য জমিদার পরিবারে জন্মগ্রহণ করেন। তিনি নিজেও ছিলেন জমিদার।

মরমী সাধক হাসন রাজা তার জীবনের বিভিন্ন সময়ে প্রায় কয়েক’শ গান রচনা করেছেন। হাসন রাজার গানে সহজ সরল স্বাভাবিক ভাষায় মানবতার চিরন্তন বাণী উচ্চারিত হয়েছিল। সকল ধর্মের বিভেদ অতিক্রম করে তিনি গেয়েছেন মাটিও মানুষের গান। বিশ্বকবি রবীন্দ্রনাথ ঠাকুরও ১৯২৫ সালে কলকাতায় এবং ১৯৩৩ সালে লন্ডনে হিবার্ট বক্তৃতায় হাসন রাজার দুটি গানের প্রশংসা করেছিলেন।

প্রখ্যাত এ সাধক ১৯২২ সালের ৬ ডিসেম্বর মৃত্যুবরণ করেন। আজ তার ৯৬তম মৃত্যুবার্ষিকী। এ উপলক্ষে শহরে উল্লেখ করার মতো কোন অনুষ্ঠান হচ্ছে না। প্রখ্যাত এই মরমী সাধকের জীবন-দর্শন ও গানের চর্চা এখানে প্রাতিষ্ঠানিকভাবে হয় না বললেই চলে।

বাউল শিল্পী বশির আহমদ বলেন, ‘মরমী কবি হাছনরাজার মৃত্যু বার্ষিকীতে সুনামগঞ্জে উল্লেখ করার মত কোন অনুষ্ঠান হচ্ছে না। যদি হাছন রাজার মৃত্যু বার্ষিকীতে বড় করে কোন মিলন মেলা হত তাহলে আগামী প্রজন্মের তরুণরা হাছন রাজার সম্পর্কে আরো জানতে পারত।’

জেলা প্রশাসক মোহাম্মদ আব্দুল আহাদ বলেন, লোক সাংস্কৃতিক রাজধানী সুনামগঞ্জ জেলা এই সুনামগঞ্জে জন্ম গ্রহণ করেছেন লোক কবি মরমী হাছন রাজা। মরমী কবি হাছন রাজার মৃত্যু বার্ষিকীতে কোন অনুষ্ঠান না থাকলে ২১ ডিসেম্বের মরমী কবি হাছনরাজার ও জন্ম বার্ষিকীতে জেলা প্রশাসন ও জেলা শিল্পকলা একাডেমীর আয়োজনে দিনব্যাপী হাছনরাজার জীবন কর্ম এবং তার সৃষ্টির উপর প্রতিযোগিতা, সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান এবং আলোচনা সভার আয়োজন করা হয়েছে।

Related posts