November 17, 2018

বিশ্বনাথ আ.লীগ দুই নেতার সখ্যতা ঐক্য চান নেতাকর্মীরা

36612692_1736996119740829_2881262313552216064_nমো. আবুল কাশেম, বিশ্বনাথ (সিলেট) প্রতিনিধি  :: একই আদর্শ ও দলের রাজনীতি করলেও দীর্ঘদিন ধরে দলীয় গ্রুপিং রয়েছেন বিশ্বনাথ উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি আলহাজ্ব পংকি খান ও ভারপ্রাপ্ত সাধারণ সম্পাদক ফারুক আহমদ। বিশ্বনাথ উপজেলা আ.লীগের কমিটি গঠনের পর পরই উপজেলা আ.লীগ দুটি বলয়ে বিভক্ত হয়ে পড়ে। জেলা আ.লীগের সাধারণ সম্পাদক ও সাবেক এমপি শফিকুর রহমান চৌধুরী বলয় ও যুক্তরাজ্য আওয়ামী লীগের যুগ্ম-সাধারণ সম্পাদক আনোয়ারুজ্জামান চৌধুরী বলয় সৃষ্ঠি হয়।
দীর্ঘদিন ধরে উপজেলা উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি আলহাজ্ব পংকি খান ও ভারপ্রাপ্ত সাধারণ সম্পাদক ফারুক আহমদ নানান কারনে আলাদা আলাদা সভা সমাবেশ করলেও বুধবার সিলেট জেলা আ.লীগের বিশেষ বর্ধিত সভা অনুষ্ঠান স্থলে পাশাপাশি দুটি চেয়ারে বসে ছবিতে দেখা যায় ওই দুই নেতাকে। পংকি খান-ফারুক আহমদের ছবি আওয়ামী লীগ নেতাকর্মীদের ফেসবুক ওয়ালে এখন ভাইরাল হয়ে পড়েছে। শেয়ার হচ্ছে এক একাউন্ট থেকে অন্য একাউন্টে। ছড়িয়ে পড়ছে দেশে ও প্রবাসের আওয়ামী নেতাকর্মীদের ফেসবুক আইডিতে।

নেতাকর্মীরা মনে করেন দুই নেতার ঐক্যে ও সকল স্তরের নেতা-কর্মীদের সরব-নিরব গ্রুপিং পরিহার করে আগামী জাতীয় সংসদ নির্বাচনে নৌকা প্রতিকে এককাট্টা হয়ে নির্বাচন করলে এই আসনটি পুনরুদ্ধার করা সম্ভব হতে পারে। বর্তমানে পৃথক বলয়ে এলাকায় চলছে তাদের রাজনীতি। গ্রুপিং-দ্বন্ধে সকল স্থানীয় নির্বাচনে ভরাডুবি হয়েছে আওয়ামী লীগের। ঐক্যবদ্ধ না হলে আগামী জাতীয় নির্বাচনে এ আসন হারাচ্ছে আওয়ামী লীগ তা ধরেই নিয়েছেন নেতাকর্মীরা।

স্থানীয় কয়েকজন আ.লীগ নেতা জানান, এক সাথে তাদের দেখা একটি ইতিবাচক দিক, আমরা একটা সুসংহত, সুসংগঠিত একটি স্মার্টার এবং স্ট্রংগার আওয়ামীলীগ হিসেবে আগামী জাতীয় নির্বাচনে অংশ নিতে চাই। এই আসনটি জননেত্রী শেখ হাসিনাকে উপহার দিতে দরকার নেতাকর্মীদের ইস্পাত দৃঢ় ঐক্য। ঐক্যের বিকল্প নেই। আওয়ামী লীগের গৌরব, এটাই আওয়ামী লীগ সৌন্দর্য। আমরা আনন্দিত, আর এটাই হলো আওয়ামী রাজনীতির কারিশমা।

Related posts