September 22, 2018

বিশ্বনাথে ৪ সন্তানের জননী আত্তহত্যা

%e0%a6%86%e0%a6%a4%e0%a7%8d%e0%a6%ac%e0%a6%b9%e0%a6%a4%e0%a7%8d%e0%a6%af%e0%a6%be

মোঃ আবুল কাশেম, বিশ্বনাথ প্রতিনিধি :: বিশ্বনাথে আছমা বেগম নামের ৪ সন্তানের জননী ঘরের তীরের সঙ্গে গলায় রশি দিয়ে আত্বহত্যা করেছেন বলে খবর পাওয়া গেছে। তিনি উপজেলার দৌলতপুর ইউনিয়নের জগদ্বিসপুর গ্রামের মৃত হাজি মস্তাফ আলীর স্ত্রী। রোববার বিকেলে উপজেলা জগদ্বিসপুর গ্রামের মৃত মস্তাফ আলীর বসতঘরে এঘটনা ঘটে।

বিষয়টি নিশ্চিত করে নিহতের ছেলে শিপন মিয়া জানান, রোববার বিকেলে পরিবারের সকলের অজান্তে কোনো এক সময় ঘরের তীরের সঙ্গে গলায় রশি বেধে মা আছমা বেগম আত্বহত্যা করেন। তিনি বেচে আছে ভেবে আমরা বিকেলে সিলেট ওসমানী হাসপাতালে নিয়ে যাই। এরপর একটি প্রাইভেট হাসপাতালে নিয়ে গিয়ে কর্তব্যরত ডাক্তার তাকে মৃত ঘোষনা করেন। তবে কি কারণে তিনি আত্বহত্যা করেছেন তা জানানেই। তার মা আত্বহত্যা করেছেন বলে তিনি দাবি করেন।

এব্যাপারে দৌলতপুর ইউপি চেয়ারম্যান আমির আলী বলেন, আমাকে আত্বহত্যার বিষয়টি  রোববার রাত ৯টায় মোবাইল ফোনে অবহিত করা হয়েছে।

বিশ্বনাথ থানার ওসি মনিরুল ইসলাম পিপিএম বলেন, বিষয়টি আমাদের কেউ অবহিত করেননি।

Related posts