November 20, 2018

বিশ্বনাথে চোরাই ২২ গরু উদ্ধারে ঘটনায় ৪টি চুরি মামলা দায়ের

FB_IMG_1534059692267বিশ্বনাথ প্রতিনিধি :: বিশ্বনাথ থানা পুলিশ ও এলাকাবাসীর সহযোগিতায় গত শনিবার সকালে ও রাতে ২২টি চোরাই গরু উদ্ধার করা হয়। চোরাই গরুগুলো উদ্ধার করে থানা কম্পাউডের ভিতরে সারিবদ্ধ করে রাখা হয়েছিল। চোরাই গরু উদ্ধারের খবর পেয়ে উপজেলার বিভিন্ন স্থান ও পার্শ্ববর্তি উপজেলার লোকজন এসে গত রোববার সকাল থেকে থানায় কম্পাউডে ভিড় করেন। উদ্ধারকৃত ২২টি গরুর মধ্যে ১০টি গরুর মালিক তাদের গরু সনাক্ত করেছেন। উদ্ধার হওয়া গরুর ঘটনায় গত রোববার রাতে ও গত মঙ্গলবার বিশ্বনাথ থানায় ৪টি চুরির মামলা দায়ের হয়েছে। সনাক্তকারী গরুর মালিকরা এ মামলাগুলো দায়ের করে। মামলা দায়েরের পর সনাক্তকারীরা গরুর সঠিক মালিক কিনা তা খতিয়ে দেখছে পুলিশ। তবে গরুগুলো বর্তমানে একটি খামারে রাখা হয়েছে।

পুলিশ জানায়, এলাকাবাসীর সহযোগিতায় বিশ্বনাথ থানা পুলিশের বিশেষ অভিযানে গত শনিবার সকাল ও রাতে পৃথক অভিযানে ২২টি চোরাই গরু উদ্ধার ও দুইজনকে আটক করেছে পুলিশ। গত শনিবার ভোরে উপজেলার উত্তর ধর্মদা গ্রামের মৃত ইন্তাজ আলীর ছেলে আবু রেজার বাড়ি থেকে চোরাই ১১টি একই গ্রামের এক প্রবাসীর গোয়াল ঘর থাকা আরও ১১টি গরু উদ্ধার করা হয়। উপজেলার উত্তর ধর্মদা গ্রামের আবু রেজা (৩৫) ও জগন্নাথপুর উপজেলার বাউরকাপন গ্রামের হেকিম মুন্সির ছেলে আবির মিয়া (৩৫) কে আটক করে পুলিশ। গরু উদ্ধারের খবর সর্বত্র ছড়িয়ে পড়লে বিশ্বনাথ উপজেলা’সহ পার্শ্ববর্তি থানার বিভিন্ন এলাকা থেকে লোকজন তাদের চুরি হওয়া গরু সনাক্ত করতে থানায় ভিড় করেন। এসময় উৎসুক জনতার ভিড়ে থানা পুলিশকে হিমশিম খেতে হয়। আটককৃতদের আসামি করে ওই মামলাগুলো করা হয়। আটককৃত আবু রেজা ও আবির মিয়াকে পুলিশ আদালতে প্রেরণ করেছে।

এব্যাপারে উপজেলার কারিকোনা গ্রামের খালেদ আহমদ বলেন, গত ২২ জুলাই তার দুটি গরু চুরি হয়। পুলিশের উদ্ধারকৃত গরুগুলোর মধ্যে তার চুরি হওয়া দুটি গরু রয়েছে। গত সোমবার তিনি থানায় গরু চুরি মামলা দায়ের করেছেন বলে জানান।

গরু উদ্ধারের ঘটনায় ৪টি মামলা দায়েরের সত্যতা স্বীকার করে থানার এসআই সবুজ কুমার নাইডু বলেন, এলাকাবাসীর সহযোগিতায় উদ্ধারকৃত ২২টি গরুর মধ্যে এখন পর্যন্ত ১০টি গরুর মালিক তাদের গরু বলে সনাক্ত করেছেন। গরুগুলো আইনি প্রক্রিয়ার মাধ্যমে দেয়া হবে। তবে বর্তমানে পুলিশ হেফাজতে গরুগুলো একটি খামারে রাখা হয়েছে বলে তিনি জানান।

Related posts