November 19, 2018

বিশ্বনাথে গাঁজাসহ পিতা-দুইপুত্র আটক

FB_IMG_1503042860487মো. আবুল কাশেম, বিশ্বনাথ প্রতিনিধি :: সিলেটের বিশ্বনাথ থানা পুলিশ ২৭০ গ্রাম গাঁজাসহ পিতা ও দুই পুত্রকে আটক করেছে পুলিশ। আটককৃতরা হলেন-উপজেলার শাহবাজপুর গ্রামের মৃত কাঁচা মিয়ার ছেলে মোঃ মধু মিয়া (৫৫), মোঃ মধু মিয়ার ছেলে মোঃ রাজন মিয়া (২৫) ও মোঃ সাজন মিয়া (২০) বৃহস্পতিবার সন্ধ্যায় তাদের শাহবাজপুর এলাকা থেকে আটক করা হয়।

গোপন সংবাদের ভিত্তিত্বে বিশ্বনাথ থানার অফিসার ইনচার্জ শামসুদ্দোহা পিপিএমের নেতৃত্বে একদল পুলিশ অভিযান চালিয়ে তাদের গাঁজাসহ আটক করা হয়।

থানা পুলিশ এক প্রেস বিজ্ঞপ্তিত্বে জানায়, বিশ্বনাথ থানার শাহবাজপুর এলাকায় জালালী ভেরাইটিজ ষ্টোর নামক দোকান ঘরে দীর্ঘদিন ধরে গাঁজা বিক্রয় করা হচ্ছে।

শাহবাজপুর গ্রামের মধু মিয়ার দক্ষিণ দুয়ারী কাঁচা মাটির ভিটার দৌচালা ঘরের প্রবেশ সংলগ্ন বারান্দার পূর্ব পার্শ্ব, (যাহার একটি দরজা ও একটি জানালা আছে) হইতে মধু মিয়ার দখল হইতে খবরের কাগজে মোড়ানো ৪০ পুড়িয়া গাঁজা ওজন ৫০ গ্রাম এবং ০১টি নীল পলিথিনের ভিতর রক্ষিত ২২০ গ্রাম গাঁজা উদ্ধার করা হয়। স্থানীয় লোকজনদের জিজ্ঞাসাবাদ কালে জানা যায়, মধু মিয়া তার সন্তান রাজন মিয়া ও সাজন মিয়াদের নিয়ে পরস্পর যোগসাজসে দীর্ঘদিন ধরে কাগজে মোড়ানো অবস্থায় নিজ বাড়ীতে গাঁজার পুড়িয়া তৈরি করে মুদি মাল বিক্রি করার নামে দীর্ঘদিন যাবৎ গোপনে মাদক বিক্রি করে এলাকার যুব সমাজকে ধ্বংস করছে। তাহাদের প্রকাশ্যে কোন আয়ের উৎস নেই। তবে ঘটনাস্থল হইতে অনুমান ১৫০০ গজ দুরে আসামীদের একটি নামমাত্র মুদির দোকান জালালী ভেরাইটিজ ষ্টোর রয়েছে। উক্ত দোকানের আড়ালে দীর্ঘদিন ধরে আটককৃতরা খবরের কাগজে মোড়ানো অবস্থায় গাঁজার পুড়িয়া তৈরি করে এলাকার যুব সমাজদের নিকট বিক্রয় করে আসছে। তাহাদের এহেন অপকর্ম ও অবৈধ উপায়ে মাদক বিক্রয় জনিত কারণে এলাকার যুব সমাজ দিনের পর দিন মাদক সেবন করিয়া ধ্বংসের পথে নিমজ্জিত হচ্ছে। আটককৃতদের বিরুদ্ধে মাদক দ্রব্য আইনে মামলা দায়েরের প্রস্তুত চলছে বলে পুলিশ জানিয়েছে।

গাঁজাসহ পিতা-পুত্রদের আটকের সত্যতা স্বীকার করে থানার অফিসার ইনচার্জ বলেন, আটককৃতরা দীর্ঘদিন ধরে এলাকায় গাঁজা বিক্রয় করে আসছে। শুক্রবার আটককৃতদের আদালতে প্রেরণ করা হবে বলে তিনি জানান।

Related posts