November 18, 2018

বিপিএলের পরবর্তী রাউন্ড নিশ্চিত করে ফেলেছেআফ্রিদি-মুশফিকের সিলেট

ঢাকা ডায়নামাইটের বিপক্ষে হারলেই বিপিএল থেকে বিদায় নিতে হতো সিলেট সুপারস্টার্সকে। শিরোপা জয়ের লড়াইয়ে টিকে থাকার জন্য তাই মরিয়া হয়েই খেলেছেন আফ্রিদি-মুশফিকরা। সেই প্রচেষ্টা শেষপর্যন্ত বৃথাও যায়নি। উত্তেজনাপূর্ণ ম্যাচে ছয় উইকেটের জয় দিয়ে গ্রুপ পর্বের বাধা পেরোনোর আশা টিকিয়ে রেখেছে সিলেট।

উদ্বোধনী জুটিতে ৩৬ রান যোগ করে শুরুটা ভালোভাবেই করেছেন সিলেটের দুই ওপেনার জশুয়া কব ও জুনায়েদ। পঞ্চম ওভারের শেষ বলে ১৫ রান করে কব পড়েছেন রানআউটের ফাঁদে। দ্বিতীয় উইকেটে ৮৬ রানের জুটি গড়ে দলকে জয়ের পথে অনেকখানি এগিয়ে দেন জুনায়েদ ও রবি বোপারা। ১৬তম ওভারে ৪৪ বলে ৫১ রানের লড়াকু ইনিংস খেলে সাজঘরে ফেরেন জুনায়েদ। এক ওভার পরে ফরহাদ রেজাকে উড়িয়ে মারতে গিয়ে আউট হন বোপারাও। তাঁর ব্যাট থেকে এসেছে দলের পক্ষে সর্বোচ্চ ৫৫ রানের ইনিংস। তবে জুনায়েদ-বোপারাকে হারালেও জয় তুলে নিতে কোনো সমস্যা হয়নি সিলেটের। শেষ ওভারে পরপর দুটি ছয় মেরে দলকে জয়ের বন্দরে নিয়ে যান অধিনায়ক শহীদ আফ্রিদি। আট বলে ২১ রান করে দলকে জিতিয়েই মাঠ ছেড়েছেন পাকিস্তানের এই অভিজ্ঞ ক্রিকেটার।

এর আগে টস হেরে ব্যাট করতে নেমে অধিনায়ক কুমার সাঙ্গাকারার ৪৮, ফরহাদ রেজা ও নাসির হোসেনের ৩১ রানের ইনিংসে ভর করে স্কোরবোর্ডে ১৫৭ রান জমা করেছিল ঢাকা ডায়নামাইটস।

নয় ম্যাচ শেষে ৮ পয়েন্ট নিয়ে পয়েন্ট তালিকার চতুর্থ স্থানে আছে ঢাকা ডায়নামাইটস। আর সমানসংখ্যক ম্যাচ খেলে সিলেট সুপারস্টার্সের সংগ্রহ ছয় পয়েন্ট। গ্রুপ পর্বের বাধা পেরোনোর জন্য নিজেদের শেষ ম্যাচটাও জিততে হবে সিলেটকে। আর প্রার্থনা করতে হবে যেন ঢাকা যেন দেখে হারের মুখ। ঢাকাকে অবশ্য এত জটিলতার মধ্যে যেতে হবে না। বৃহস্পতিবার বরিশাল বুলসের বিপক্ষে জিতলেই চলে যাবে পরবর্তী পর্বে।

বিপিএলের পরবর্তী রাউন্ড নিশ্চিত করে ফেলেছে সাকিব আল হাসানের রংপুর রাইডার্স, মাশরাফি বিন মুর্তজার কুমিল্লা ভিক্টোরিয়ানস ও মাহমুদউল্লাহর বরিশাল বুলস।

Related posts