September 20, 2018

বলে থাকি হোটেল-মোটেল পার্থক্য কোথায়?

ঢাকা: ক্যালেন্ডোরে পাতা উল্টাতে উল্টাতে বছর শেষ হয়ে এলো। কয়েক দিন পরেই আসছে নতুন ক্যালেন্ডার। সঙ্গে আনছে নতুন বছরের হিসাব-নিকাশ। পুরোনো বছরকে বিদায় এবং নতুন বছরকে স্বাগত জানাতে প্রস্তুতি শুরু হয়েছে পৃথিবী জুড়ে। আমাদের দেশের মানুষও পিছিয়ে নেই। ইতোমধ্যে বিভিন্ন শ্রেণির মানুষ নতুন বছরকে স্মরণীয় করে রাখতে নিচ্ছে বিভিন্ন ভ্রমণ পরিকল্পনা। ভ্রমনে গেলেই যেটি বেশি প্রয়োজনীয় সেটি হচ্ছে হোটেল। কিন্তু আমাদের অনেকেরই জানা নেই কোনটি হোটেল? আর কোনটি মোটেল। ব্রেকিংনিউজরে পাঠকের জন্য আজকের আয়োজন।

হোটেল এবং মোটেল :-

১। হোটেল বহুতলবিশিষ্ট হয়। এখানে ঘরের দরজাগুলো দালানের ভেতরের দিকে থাকে। প্রধানত পর্যটনকেন্দ্র বা শহরের ভেতরে অবস্থিত হয়। অপরপক্ষে মোটেল সাধারণত ১-২ তলা হয়ে থাকে। ঘরগুলোর দরজা বাইরের দিকে থাকে। এর চারপাশ সাধারণ মানের ব্যালকনি বা বেড়া দিয়ে ঘেরা থাকে। মোটেল সাধারণত মহাসড়ক, গ্রাম, শহরের পাশে অবস্থিত হয়ে থাকে যেখানে একজন ভ্রমণকারী রাত কাটাতে পারেন।

২। মূল দৃশ্যগত পার্থক্য হল ঘরের দরজার দিকমুখীতা। হোটেলের প্রতিটি ঘরের দরজা হোটেলের অভ্যন্তরীণ পথের সাথে যুক্ত থাকে আর মোটেলের ঘরের দরজাগুলো সরাসরি মোটেলের পার্কিং লটের দিকে হয়ে থাকে। এই বৈশিষ্ট্য দেখে সহজেই হোটেল আর মোটেল চিহ্নিত করা যায়।

৩। হোটেল বলতে একটি বিল্ডিংকে বোঝায় যেখানে মানুষ কক্ষ এবং খাবারের মূল্য পরিশোধ করে সাধারণত স্বল্প সময়ের জন্য অবস্থান করে (ছুটি কাটানোর জন্য, জরুরি প্রয়োজনে অবস্থানের জন্য প্রভৃতি)। কিন্তু মোটেল বলতে একরকম ব্যবস্থাপনাকে বোঝায় যা সেসব লোকের থাকার জন্য তৈরি (অর্থ পরিশোধসাপেক্ষে) যারা গাড়িতে করে ভ্রমণ করেন। এখানে কক্ষের কাছাকাছি জায়গায় গাড়ি পার্কিং করার ব্যবস্থা থাকে।

এগুলোই হোটেল আর মোটেল এর মূল বৈশিষ্ট্য। কিছু মোটেলে ফাস্টফুড এবং টেলিফোনের ব্যবস্থা থাকতে পারে। কিন্তু বর্তমানে হোটেলগুলোতে বিশেষ করে তারকা হোটেলগুলোতে আরো অনেক সুবিধা যেমন: খেলার জায়গা, ইন্টারনেট সুবিধা, সুইমিং পুল ইত্যাদি থাকে।

Related posts