September 20, 2018

পুতিন রাশিয়ার আমরন প্রেসিডেন্ট, যেমন চীনা প্রেসিডেন্ট জিংপিং?

আজ রাশিয়ায় প্রেসিডেন্ট নির্বাচন হয়ে গেল। এবারের নির্বাচনে মোট ছয়জন প্রতিদ্বন্দী ময়দানে অবতীর্ন হয়েছেন। সর্বমোট ভোট পড়েছে ৬৫% এবং ১০২ বিলিয়ন ভোটার তাদের ভোটাধিকার সাব্যস্ত করেছেন।

আজকের এ ভোটে কে পরবর্তী রাশিয়ার প্রেসিডেন্ট নির্বাচিত হচ্ছেন? প্রাথমিক জরিপে দেখা গেছে, ভ্লাদিমীর পুতিনই চতুর্থ বারের মত নির্বাচিত হতে চলেছেন। কারন শুধু একটাই, একমাত্র পুতিনই রাশিয়ার বিদেশনীতিকে বিশ্বের দরবারে গ্রহনযোগ্যমুখী করে তুলতে পেরেছেন। আর তিনিই একমাত্র বিশ্বনেতা যিনি অকুতোবভয় এবং আমেরিকার সাম্রাজ্যবাদী নীতির বিরুদ্ধে বজ্রকণ্ঠ, সিদ্ধহস্ত। আজকের দুনিয়ায় পুতিন না থাকিলে হয়তো আমেরিকার বেড়াজালে গোটা বিশ্ব দাসত্বের জীবন কাটাত; বিশেষ করে মুসলিম বিশ্বের অবস্থা একেবারে নাস্তে-নাবুদ হয়ে যেত। তাই ভ্লালিমীর পুতিনকে নির্বাচনী বিজয়ের আগাম শুভেচ্ছা।

উল্লেখ্য, ভ্লাদিমীর পুতিন ১৯৯৯ সলে প্রথম দেশটির পার্লামেন্টে নির্বাচিত হন পুরো ছয় বছরের জন্য। এভাবে বিগত তিন তিন বার তিনি অবিসংবাদিত নেতা হিসেবে প্রেসিডেন্ট পদে নির্বাচিত হন। আজকের নির্বাচনে তিনি চতুর্থবারের মত নির্বাচিত হচ্ছেন। রাশিয়ার সংবিধান অনুযায়ী কোন ব্যক্তি পঞ্চমবারের মত প্রেসিডেন্ট পদে নির্বাচিত হতে পারেন না। সেদিক থেকে বলা যায়, এবারের নির্বাচনই পুতিনের জন্য শেষ নির্বাচন।

তবে বিশেষজ্ঞ মহলের ধারনা, রাশিয়ার আইন প্রনয়েতারা এবারের পার্লামেন্টে সংবিধান সংশোধন করে পুতিনকে আমরন প্রেসিডেন্ট পদে বহাল থাকার অধিকার প্রদান করবে; যেটি অতি সম্প্রতি চীনা পার্লামেন্ট দেশটির বর্তমান প্রেসিডেন্টের ক্ষেত্রে করেছে।

mbfaiz/indiaPutin casting his own vote

Related posts