September 21, 2018

নেত্রকোনায় দুর্বৃত্তদের ছোড়া এসিডে ঝলসে গেল খালা-ভাগ্নী!

মোঃ আজিজুর রহমান ভূঞা
বাবুল, ময়মনসিংহ ব্যুরোঃ
নেত্রকোনার মদনে দুর্বৃত্তদের ছোড়া এসিডে খালা ও ভাগ্নী দগ্ধ হয়েছে। বুধবার রাতে মদনের কাইটাইল গ্রামের বাগবাড়িতে এ ঘটনা ঘটলে পুলিশ জিজ্ঞাসাবাদের জন্য সুনু মিয়া নামে একজনকে আটক করেছে।

মদন হাসপাতালের জরুরি বিভাগের ডাক্তার সাদিকুর রহমান জানান, ওই দিন রাত সাড়ে ১১ টার দিকে এসিড দগ্ধ হয়ে নিয়াশা আক্তার (৩০) ও তার ভাগ্নী মনোয়ারা আক্তার (৪৮) হাসপাতালে আসেন। পরে তাদের অবস্থা খারাপের দিকে যেতে থাকলে দ্রুত ময়মনসিংহ মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠানো হয়।

এসিড দগ্ধদের স্বজনরা জানান, কাইটাইল গ্রামের আনজু মিয়ার মেয়ে স্থানীয় স্কুলের ৭ম শ্রেনির ছাত্রী সুইটি আক্তারকে বিয়ে দিতে আমাদের আত্মীয়দের উপর চাপ প্রয়োগ করা হয়। এসব বিষয় নিয়ে আদালতে মামলা পর্যন্ত হয়েছে।

বুধবার সন্ধায় আনজু মিয়ার ভাই বাচ্ছু মিয়া মোবাইল ফোনে (এসিড দগ্ধদের স্বজনদের) জানায়, রাতে আমাদের বাড়িতে পুলিশ আসবে। এতে ভয়ে বাড়ির পুরুষরা চলে যায় । রাত সাড়ে ১০ টার দিকে দুবৃত্তররা জানু মিয়ার বসত ঘরের খোলা জানালা দিয়ে এসিড নিক্ষেপ করে পালিয়ে যায়। এতে মনোয়ারা ও নিয়াশা মারাত্মকভাবে এসিড দগ্ধ হয়।

এ ঘটনায় মদন থানার এসআই মারুফুজ্জামান বলেন, খবর পেয়ে তাৎক্ষনিক ঘটনাস্থল পরিদর্শন করে আালামত সংগ্রহ করা হয়েছে। পাশের বাড়ি থেকে অভিযোগের প্রেক্ষিতে সুনু মিয়াকে আটক করা হয়েছে।

Related posts