November 15, 2018

নাটোরের হাসানুর রহমান

হাকিকুল ইসলাম খোকনঃ সাহিত্যাকাশে দেশবরেণ্য অনেক গুণী ব্যক্তি নিজ বলে বলীয়ান হয়েছেন। কেউ উপন্যাস, কেউ গল্প, কেউবা নাটক ছড়া-কবিতায় নিজেকে প্রতিষ্ঠিত করে ভূয়সী প্রশংসা পেয়েছেন। কেউ কেউ প্রতিভাকে ধরে রাখে সাংগঠনিক কর্মকান্ড নিয়ে, আর প্রত্যেকেই এতসব কিছু করতে পারে স্বদিচ্ছা আর প্রতিভার গুণে।

মায়ের তুলনা নাই। মায়ের পায়ের নিচে সন্তানের বেহেস্ত। মা জগতের সবচেয়ে পবিত্র আত্মীয়, বিশাল রহস্যময় আকাশের সুন্দরতম গ্রহ-নক্ষত্র-তারকারাজী।

প্রতিভা আর মায়ের সুন্দরতম প্রস্ফুটিত উপহার হচ্ছে শিরি। দৌলতুন নেসা শিরি। যাকে নেক আদর ভালোবাসা আর যত্নে লালন-পালন করে আসছেন বাংলা সাহিত্যের উজ্জ্বল নক্ষত্র শিশু সাহিত্যিক হাসানুর রহমান। তিনি আমাদের পরম আপন-জন। শিশুদের, ছোটদের, বড়দের। হয়ত হাসান ভাইকে নিয়ে লিখতে গেলে অনেক কিছুই লেখা যায়। লেখার ফোয়ারা ছুটবে দ্রুত গামী আকাশ যানের মতই।

ইংরেজী ১৯৪৬ সালের ২২ আগষ্ট পৃথিবীর মুখ আলোয় আলোকিত করে ছোটটো শিশুর আগমন ঘটে। বাংলাদেশের নাটোর জেলার সিংড়া উপজেলা অর্ন্তগত ছায়াঘেরা ঘুঘু ডাকা লালোর গ্রামে। দুই বছরের মাথায় মমতাময়ী মাকে হারান একমাত্র শিশু হাসানুর রহমান। অবুঝ শিশুটি তাই সারা বিশ্বে ছড়িয়ে দিয়েছে মায়ের স্মৃতি। মায়ের স্মৃতিকে জাগিয়ে রাখতে ১৯৯২ সালের ২৮ ফেব্রুয়ারী বাংলাদেশের রাজধানী ঢাকা মহানগরীর সেন্ট্রাল রোডে জন্ম নেয় ”শিরি শিশু সাহিত্য কেন্দ্রের”। পরবর্তীতে ১৯৯৭ সালে শিরি শিশু সাহিত্য কেন্দ্র বাংলাদেশ কেন্দ্রের পরিচালক হিসেবে আমাকে নিযুক্ত করে পাড়ি জমান সুদূর আমেরিকার এস্ট্রোরিয়াতে। অতপর ১৯৯৮ সালের ৩১ মে প্রতিষ্ঠিত করেন শিরি শিশু সাহিত্য কেন্দ্র নিউইয়র্ক কেন্দ্র। খুব সফলভাবেই বাংলাদেশ এবং আমেরিকার ২টি কেন্দ্র কার্যক্রম চালিয়ে আসছিল। প্রতিষ্ঠিত করা হল দেশ বরেণ্য লেখকদের তার প্রতিভার পুরুস্কার স্বরূপ ”শিরি এ্যাওয়ার্ড”। জাতীয়ভাবে আমাদের গুণীব্যক্তিদের বিভিন্ন বিষয়ে এ্যাওয়ার্ড প্রদান করা হল।

লেখালেখির জগতে এখনো পর্যন্ত নিরলসভাবে সাধনা করে যাচ্ছেন শিশু সাহিত্যিক হাসানুর রহমান। এ যাবৎ ছোটদের-বড়দের মিলিয়ে অনেক উপন্যাস, গল্প, ছড়ার বই প্রকাশ করেছেন। অসংখ্য সম্পাদিত গ্রন্থ প্রকাশ করছেন।সিনিয়র সাংবাদিশ হাকিকুল ইসলাম খোকন সম্পাদিত বই- ”শিরি সে এক মা” শিশু সাহিত্যিক হাসানুর রহমানের সাধনার গ্রন্থ হিসেবে গ্রন্থ হিসেবে জনপ্রিয়তা পেয়েছে যা প্রতি বছর নিউইয়র্ক থেকে প্রকাশিত হচ্ছে এবং বাংলাদেশ-আমেরিকার সকল বাংলা ভাষাভাষির লেখকরা স্বতস্ফুর্তভাবে অংশগ্রহন করেন।

শিশু সাহিত্যিক, সংগঠক হাসানুর রহমানের উল্লেখযোগ্য গ্রন্থের মধ্যে নিশি ভিলা, দুধে আলতা, চুমকি, একাত্তরের কথা, বিবিজানের ডাইরী, ওরা ক’জনা মুক্তিসেনা, আল পিনাপিন, বরণীয়দের স্মরণীয় কিছু-১,বরণীয়দের স্মরণীয় কিছু-২,সোনারঙ পাখি,নাটরের বনলতা সেন সহ প্রমুখ উল্লেখযোগ্য গ্রন্থ।

প্রতিভাবান দেশ বরেণ্য শিশু সাহিত্যিক হাসানুর রহমান সত্তর এর সিড়িতে পা রেখেছেন। তার এই পা রাখা আমাদের সবার এবং হাসান ভাইয়ের জীবনে সফলতা আর মঙ্গলময়তায় ভরে উঠুক। ৭০তম জন্মদিনে জানাই লাল গোলাপ শুভেচ্ছা। আমরা এখন নাটোরের বনলতা সেনকে খুঁজিনা, খুঁজি নাটোরের হাসানুর রহমানকে খুঁজি। তবে হাসানুর রহমান কথা রাখেন। মমতাময়ী মায়ের জন্য যিনি নিজের জীবনটাকে উৎস্বর্গ করেছেন।

আমরা ২২ আগষ্টকে স্মরণীয় করে রাখি মনের ডাইরীতে। শুভ জন্মদিনে আমরা যেমন করি-জ্ঞানের আলোয় আলোকিত করি আধারকে ছাপিয়ে।

অনেক অনেক দূর থেকে বলছি হাসান ভাইকে – ”হ্যাপি বার্থ ডে টু ইউ”। হ্যাপি বার্থ ডে টু

Related posts