April 22, 2019

দুই শিশুর মধ্যে মারামারিকে কেন্দ্র করেই ইউসুফ হত্যা!

আল-মামুন,খাগড়াছড়ি প্রতিনিধিঃ  খাগড়াছড়ির খাগড়াছড়ির গুইমারা উপজেলার দক্ষিণ বড়পিলাক এলাকায় খেলা করায় সময় দুই শিশুর মধ্যে মারামারির জেরে আবু ইউসুফ (রানা) নামের ১১ বছর বয়সী এক শিশুকে হত্যার ঘটনা ঘটেছে। গুইমারা থানার পুলিশ মঙ্গলবার সকালে নিহতের লাশ উদ্ধার।

এ ঘটনায় ৩ জনকে আটক করা হয়েছে বলে নিশ্চিত করে গুইমারা থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা মো: মোস্তাফিজুর রহমান জানান, মঙ্গলবার সকাল ৮টায় গুইমারার দক্ষিণ বড়পিলাক এলাকায় থেকে তল্লাশি চালিয়ে লুকিয়ে রাখা লতা-পাতা মোড়ানো অবস্থায় রানার লাশটি উদ্ধার করা হয়। শিশুটিকে শ্বাসরোধ করে হত্যা করা হয়েছে বলে পুলিশ প্রাথমিক ভাবে ধারনা করছে বলে জানিয়ে তিনি বলেন,

এ ঘটনায় হৃদয়ের মা হাজেরা বেগম ও খালা ফাতেমা বেগম ও খালু রমজান আলীসহ ৩ জনকে আটক করলেও মূল হত্যাকারী হৃদয়ের বাবা আবুল কাশেম,মামা হযরত আলী পালাতক রয়েছে বলে জানান। জড়িতদের  আটকের পুলিশ চেষ্টা চলিয়ে যাচ্ছে। এ রিপোর্ট লেখা পর্যন্ত মামলার হয়েছে। মামলা নং ০১,তারিখ ১০-০৫-১৬।

স্থানীয় সূত্রে জানায়, সোমবার বিকেল ৫টার দিকে গুইমারা উপজেলার দক্ষিণ বড়পিলাক এলাকায় খেলা করার সময় আবুল কাশেমের ছেলে হাফিজুর রহমান হৃদয় (১০) ও সাজেদুর রহমানের ছেলে আবু ইউসুফ রানার মধ্যে মারামারির ঘটনা ঘটে। মারামারির এক পর্যায়ে হৃদয়ের হাত ভেঙে যায়। এর পর থেকে রানা নিখোঁজ হয়। অনেক খোঁজাখুজির পর তাকে পাওয়া না যাওয়ার বিষয়টি সোমবার রাতে পুলিশকে জানানো হয় বলে জানা যায়।

দ্যা গ্লোবাল নিউজ ২৪ ডট কম/রিপন ডেরি/১০ মে ২০১৬

Related posts