November 15, 2018

দিল্লির ধর্ষণকারী কিশোর ছাড়া পেয়ে যাচ্ছে

ভারতের রাজধানী দিল্লিতে মেডিকেলের এক ছাত্রীকে চলন্ত গাড়িতে গণ-ধর্ষণ ও পরে হত্যা করার দায়ে দোষী সাব্যস্ত এক কিশোরের মুক্তি আটকে দিতে অস্বীকৃতি জানিয়েছে দিল্লির হাই কোর্ট।ফলে তার মুক্তি আটকে দেওয়ার বিষয়ে আইনি চ্যালেঞ্জও শেষ পর্যন্ত ব্যর্থ হলো।

সাজাপ্রাপ্ত ওই ব্যক্তির আগামি রবিবার ছাড়া পাওয়ার কথা রয়েছে।ধর্ষণের সময় তার বয়স ছিলো ১৮ বছরের নিচে এবং ভারতের আইন অনুসারে ওই অপরাধের জন্যে তার সাজা খাটা হয়ে গেছে।ভারতীয় আইনে কিশোর অপরাধের সর্বোচ্চ সাজা হচ্ছে তিন বছরের জেল।

নির্ভয়া নামের ওই ছাত্রীকে ২০১২ সালে গণ-ধর্ষণের ঘটনা সারাদেশে তোলপাড় সৃষ্টি করেছিলো।তাকে যাতে মুক্তি দেওয়া না হয় সেজন্যে নির্ভয়ার পিতামাতা দুজনেই আবেদন জানিয়েছিলেন। তারপর ভারতে এ নিয়ে বিতর্ক শুরু হয়।

নির্ভয়ার পিতামাতা ও রাজনীতিকদের অনেকেই তার এই সাজা বাড়ানোর দাবি জানিয়েছেন।তাদের কথা হচ্ছে, এই ব্যক্তিকে মুক্তি দেওয়া হলে সমাজের জন্যে সে বড়ো ধরনের ঝুঁকির কারণ হয়ে উঠতে পারে।

কিন্তু শুক্রবার হাইকোর্ট বলছে, তাকে আর কিশোর সংশোধনাগারে রেখে দেওয়া সম্ভব নয়। কারণ তিন বছরের সাজা সে ইতোমধ্যেই খেটে ফেলেছে।এই অপরাধের আরো তিনজনকে আদালত মৃত্যুদণ্ড দিয়েছে

দি গ্লোবাল নিউজ ২৪ডট কম/মেহেদি/ডেরি

Related posts