September 25, 2018

তুরস্ক-রাশিয়ার মধ্যে ‘যুদ্ধের ঝুঁকি’ দেখছেন ওলাঁদ

533
ফরাসি প্রেসিডেন্ট ফ্রাঁসোয়া ওলাঁদ বলেছেন, সিরিয়া সংঘাতে আঙ্কারার ক্রমবর্ধমান জড়িয়ে পড়াকে কেন্দ্র করে রাশিয়া ও তুরস্কের মধ্যে যুদ্ধের ঝুঁকি তৈরি হচ্ছে।

‘তুরস্ক সিরিয়ায় জড়িয়ে গেছে… কাজেই যুদ্ধের ঝুঁকি তৈরি হয়েছে,’ শুক্রবার ফ্রান্স রেডিও ইন্টারকে বলেন ওলাঁদ।

‘এ কারণে (জাতিসংঘের) নিরাপত্তা পরিষদ বৈঠকে বসছে,’ যোগ করেন ওলাঁদ।

ওলাঁদ বলেন, রাশিয়া যদি (সিরিয়ার স্বৈরশাসক) বাশার আল-আসাদকে একতরফা সমর্থন দিতে থাকে তবে সে পেরে উঠবে না’। তিনি সিরিয়ার ব্যাপারে মস্কোর ওপর চাপ সৃষ্টির আহ্বান জানান।

ওলাঁদ বলেন, ‘আমি সমাধানসূত্র থেকে রাশিয়াকে বাদ দিতে চাই না। আমি মস্কো গিয়েছিলাম ভ্লাদিমির পুতিনকে একথা বলতে যে এই রাজনৈতিক পটপরিক্রমায় আমাদের সবাইকে একযোগে কাজ করতে হবে… কিন্তু আমি এটা গ্রহণযোগ্য মনে করি না যে লোকজন যখন আলোচনা চালিয়ে যাচ্ছে তখন তারা (রাশিয়া) বেসামরিক লোকদের ওপর বোমাবর্ষণ করছে।’

যুক্তরাষ্ট্রের অবস্থান সম্পর্কে জানতে চাইলে ওলাঁদ বলেন, ‘আমেরিকানরা মনে করে যে আগে তারা যেভাবে বিশ্বের সব জায়গায় জড়িয়ে পড়ত এখন সেটা করার দরকার নেই…সে কারণে যুক্তরাষ্ট্র পিছিয়ে যাচ্ছে। অবশ্যই আমি চাই যে আমেরিকানরা আরো বেশি সক্রিয় হোক।’

এদিকে তুরস্ক সিরিয়া সঙ্কটের সমাধানের জন্য সিরিয়ায় স্থলবাহিনী মোতায়েনের জন্য তার আন্তর্জাতিক মিত্রদের প্রতি আহ্বান জানিয়েছে। আঙ্কারা এটাকেই সমাধানের একমাত্র পথ বলে মনে করছে।

তুরস্কের এ দাবি নিয়ে আলোচনার জন্য আজ নিরাপত্তা পরিষদের জরুরি বৈঠকের আহ্বান জানিয়েছে রাশিয়া। আজই এ বৈঠক হবে।

তুরস্ক ও সৌদি আরব সিরিয়ায় আসাদ বিরোধীদের সমর্থন দিচ্ছে। আর গত ৩০ সেপ্টেম্বরের থেকে আসাদের সমর্থনে বিমান হামলা চালাচ্ছে রাশিয়া।

সূত্র: এএফপি
দি গ্লোবাল নিউজ ২৪ ডটকম/রিপন/ডেরি

Related posts