September 23, 2018

‘তুরস্কের সঙ্গে রাশিয়ার যুদ্ধে জড়িয়ে পড়ার সম্ভাবনা নেই’

রাশিয়ার পররাষ্ট্রমন্ত্রী সার্গেই লাভরভ

ইন্টারন্যাশনাল ডেস্কঃ রাশিয়ার পররাষ্ট্রমন্ত্রী সার্গেই লাভরভ জানিয়েছেন, তুরস্কের সঙ্গে সম্পর্কের মারাত্মক অবনতি হলেও সরাসরি যুদ্ধে জড়িয়ে পড়ার কোন সম্ভাবনা নেই।

এক সংবাদ সম্মেলন তিনি বলেন, তুর্কি এফ-সিক্সটিন বিমানের হামলায় রুশ যুদ্ধবিমান ভূপাতিত এবং এক পাইলট নিহত হলেও আপাতত তুরস্কের সঙ্গে কোনো যুদ্ধে জড়াচ্ছে না রাশিয়া।

দু’দেশের পররাষ্ট্রমন্ত্রীর মধ্যে ফোনালাপ হয়েছে। আলাপে রুশ বিমান ভূপাতিত করাকে ‘দুর্ঘটনা’ বলে এর জন্য তুর্কি পররাষ্ট্রমন্ত্রী সমবেদনা জানিয়েছেন বলেও জানান লাভরভ। আকাশসীমা লঙ্ঘনের দাবি করা তুরস্কের ভূমিকাকে ‘ভণ্ডামি’ বলেছে রাশিয়া। কারণ ২০১২ সালে তুর্কি ফ্যান্টম বিমান সিরিয়ার আকাশসীমা অতিক্রম করায় তা ভূপাতিত করা হয়।

তুর্কি প্রেসিডেন্ট রিসেপ তাইয়েপ এরদোগান বলেছিলেন,‘ কয়েক মিনিটের জন্য আকাশসীমা অতিক্রম করার মানে এই নয় যে কোনো দেশের বিমানকে ভূপাতিত করতে হবে’। অথচ কয়েক সেকেন্ডের ব্যবধানে এই তুরস্কই রুশ বিমান ভূপাতিত করে।

সুখোয়-টোয়েন্টি ফোর ভূপাতিত করার জন্য তুরস্ককে তিরস্কার অব্যাহত রেখেছে। পাশাপাশি ধৃষ্টতার হুঁশিয়ারি হিসেবে ভূমধ্যসাগরে ‘মস্কোভা’ নামের বিশালাকার ডেস্ট্রয়ার মোতায়েন করেছে রাশিয়া। ‘যে কোনো টার্গেট’ ধ্বংস করতে ডেস্ট্রয়ারটি সর্বোচ্চ সতর্ক অবস্থায় প্রহরা দিচ্ছে।

এছাড়া সিরিয়ায় ইসলামিক স্টেট বা আইএস বিরোধী বিমান হামলা চলবে বলে জানিয়েছে রাশিয়া। প্রয়োজনে বোমা নিক্ষেপের সময় রুশ বোমারু বিমানের নিরাপত্তায় একসঙ্গে উড়বে রাশিয়ার অত্যাধুনিক সব ফাইটার জেট। অবস্থা গুরুতর হলে আকাশে যেকোনো হুমকি রুখতে প্রস্তুত রাখা হয়েছে সর্বাধুনিক এস- ফোর হানড্রেড মিসাইল ব্যবস্থা।

আইএস জঙ্গিদের তেলবাহী লরিবহরে হামলা চালিয়ে ফেরার সময় তুরস্কের এফ-সিক্সটিন যুদ্ধবিমানের হামলায় রাশিয়ার একটি সুখোয় বিমান বিধ্বস্ত হয়। বিমানের দু’জন পাইলট প্যারাশ্যুটে অবতরণের চেষ্টার সময় সিরিয়ার তুরস্কপন্থী বিদ্রোহীদের গুলিতে এক রুশ পাইলট নিহত হন। অপর রুশ পাইলটকে বিশেষ অভিযানে উদ্ধার করে রাশিয়া। তবে সেসময় বিদ্রোহীদের হামলায় আরও এক রুশ মেরিন সেনা নিহত হন।

দি গ্লোবাল নিউজ ২৪ ডট কম/রিপন/ডেরি

Related posts