September 26, 2018

‘জাতিকে জাগাতে সর্বপ্রথম শিক্ষায় নজর দিতে হবে’

এ কে আজাদ,চাঁদপুর ঃ জাতীয় বিশ^বিদ্যালয়ের উপাচার্য প্রফেসর ড. মো. হারুন অর রশিদ বলেন, চাঁদপুর ফরাক্কাবাদ ডিগ্রি কলেজে না আসলে আমি ঝুঝতে পারতাম না কি সুন্দর একটি পরিবেশে এই কলেজটির অবস্থান। জাতীয় বিশ^বিদ্যালয়ের অন্য কোন কলেজে এরকম সুন্দর একটি দিঘী রয়েছে কিনা তা আমার জানা নেই। আমাদের দেশে অনেকেই আছেন, যারা প্রতিষ্ঠিত হয়ে নিজেদের একালার খোঁজ-খবর রাখেন না। কিন্তু সুজিত রায় নন্দী তার জন্ম ভূমিকে ভুলেন নি। তিনি তার এলাকার উন্নয়নে এখন পর্যন্ত যা করেছেন, অনেক মানুষ তার পুরো জীবনেও তা করতে পারবে না।

তিনি মঙ্গলবার চাঁদপুর সদর উপজেলার ফরাক্কাবাদ ডিগ্রি কলেজের বার্ষিক ক্রীড়া প্রতিযোগীতা, পুরস্কার বিতরণ ও সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে এসব কথা বলেন। এসময় তিনি আরো বলেন, বাংলাদেশ যদি স্বাধীন না হতো, তবে এই এলাকার মানুষ উন্নত শিক্ষা পাওয়ার স্বপ্ন দেখতে পারতো না। বঙ্গবন্ধুর নেতৃত্বে একটি স্বাধীন রাষ্ট্র পাওয়ার কারণে আজ আমার নিজেদের অধিকার প্রতিষ্ঠা করতে পেরেছি। যা এই ফরাক্কাদেও দৃশ্যমান রয়েছে। একটি জাতিকে জাগিয়ে তুলতে হলে সর্ব প্রথম শিক্ষার দিকে নজর দিতে হবে। শিক্ষিত কোনো জাতি পিছিয়ে থাকে না। বঙ্গবন্ধুর স্বপ্ন ছিলো সুখি-সমৃদ্ধ একটি বাংলাদেশ গড়ে তোলা। সেই স্বপ্ন বাস্তবায়ন করতে হলে একটি শিক্ষিত জাতি গড়ে তুলতে হবে। বর্তমান সরকার বঙ্গবন্ধুর সোনার বাংলা গড়ে তুলতে বছরের প্রথম দিনে শিক্ষার্থীদের মাঝে ৩৩ কোটি বই বিনামূল্যে বিতরণ করছেন।
উপাচার্য হারুন অর রশিদ আরো বলেন, মেয়েদের শিক্ষা নিশ্চিত করার জন্য যা যা করণীয় তা করার জন্য আমি আপনাদের সহযোগীতা কামনা করছি। আমি চাই এদেশের প্রত্যেকটা মেয়ে উচ্চ শিক্ষা অর্জন করার সুযোগ পাক। আপনার ফরাক্কাবাদ কলেজের জন্য যত গুলো চান ততগুলো বিষয়ে অনার্স কোর্স চালু করার ব্যবস্থা করা হবে। তবে আপনাদের একটি বিষয় নিশ্চিত করতে হবে তা হলো ছাত্র-ছাত্রীদের শ্রেণী কক্ষ, শিক্ষকসহ অবকাঠামো দিক নিশ্চিত করতে হবে।

সকালে ক্রীড়া প্রতিযোগীতার উদ্বোধন করেন বাংলাদেশ নির্বাচন কমিশনের নির্বাচন কমিশানার মো. শাহ্ নেওয়াজ। বাংলাদেশ আওয়ামী লীগ কেন্দ্রীয় নির্বাহী কমিটির সদস্য ও ফরাক্কাবাদ ডিগ্রি কলেজের প্রতিষ্ঠাতা সভাপতি সুজিত রায় নন্দীর সভাপতিত্বে ও বিশেষ অতিথির বক্তব্য রাখেন জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি ও পৌর মেয়র নাছির উদ্দিন আহমেদ, পুলিশ সুপার শামছুন্নাহার, জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক আবু নঈম পাটোয়ারী দুলাল, ফরাক্কাবাদ উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক মো. রুহুল আমিন হাওলাদার, ডিগ্রি কলেজের অর্থনীতি বিভাগের সহকারি অধ্যাপক মো. মাইনুদ্দিন আহমেদ। অনুষ্ঠানে স্বাগত বক্তব্য রাখেন কলেজের অধ্যক্ষ্য ড. মো. হাসান খান। পরে অতিথিবৃন্দ ক্রীড়া প্রতিযোগিতায় অংশগ্রহণকারী বিজয়ী খেলোয়াড়দের হাতে পুরস্কার তুলে দেন। পরে সন্ধ্যায় মনোজ্ঞ সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান অনুষ্ঠিত হয়।

Related posts