September 19, 2018

গ্যাস চুরির অভিযোগে কারখানায় হামলা, সংঘর্ষে ৬ পুলিশসহ আহত ২৫

রফিকুল ইসলম রফিক                               
নারায়ণগঞ্জ প্রতিনিধিঃ 
নারায়ণগঞ্জের সিদ্ধিরগঞ্জে গ্যাস চুরি করার কারণে পর্যাপ্ত গ্যাস না পাওয়ার অভিযোগে একটি পোশাক কারখানায় হামলা চালিয়ে ভাংচুর করেছে এলাকাবাসী। এ ঘটনাকে কেন্দ্র করে পুলিশের সাথে এলকাবাসীর সংঘর্ষে ৬ পুলিশসহ ২৫ জন আহত হয়েছে। পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনতে পুলিশ বেশ কয়েক রাউন্ড শর্টগানের গুলি ছুরে। মঙ্গলবার বিকেলে সিদ্ধিরগঞ্জ থানার জালকুলি এলাকায় এ ঘটনা ঘটে।

এলাকাবাসীর অভিযোগ, নারায়ণগঞ্জের সিদ্ধিরগঞ্জের জালকুড়ি উত্তরপাড়া আবাসিক এলাকায় কয়েক বছর আগে ভিবজিউর নীট কম্পোজিট লিমিটেড নামক ডাইং কারখানা গড়ে তোলা হয়। কিন্তু কারখানার মালিক ডাইং প্রতিষ্ঠান জন্য আবাসিক লাইন থেকেই গ্যাস সংযোগ নেয়। যে কারনে এলাকাবাসি গ্যাস রান্না কাজে গ্যাস পাচ্ছিলনা। বিষয়টি তারা লিখিত ভাবে তিতাস গ্যাস কর্মকর্তাদের অবহিত করে। কিন্তু তার পরও কোন ব্যবস্থা না নেয়ায় র্দীঘ দিন ধরে ক্ষোভের সৃষ্টি হয়া।

মঙ্গলবার এলাকাবাসী মসজিদের মাইকে ঘোণণা দিয়ে লোকজন জড়ো করে গ্যাসের দাবিতে বিক্ষোভ প্রদর্শন করতে থাকে। এক পর্যায়ে ক্ষুব্দ লোকজন গ্যাস সংকটের জন্য দায়ি ওই কারখানা ঘেরাও করে হামলা চালিয়ে ভাংচুর করে। এসময় কারখানার ভেতরে থাকা ট্রাক, প্রাইভেটকারসহ ছয়টি যানবাহন ভাংচুর করে। পরে পুলিশ পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রনের চেষ্টা করলে গ্রামবাসির সাথে পুলিশের সংঘষ বেধেঁ যায়। পরে পুলিশ লাঠির্চাজ ও শর্ট গানের গুলি ছুড়ে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রনে আনে।

তবে এলাকাবাসীর অভিযোগ অস্বীকার করে ভিবজিউর নীট কম্পোজিট লিমিটেড এর চেয়ারম্যান নাজমুল আহসন খান ওই কারখানা কর্তৃপক্ষ জানিয়েছে একটি মহল উদ্দেশ্যমূলকভাবে কোন রাজনৈতিক স্বার্থ হাসিলের জন্য এই প্রতিষ্ঠানে হামলা চালিয়েছে।

অতিরিক্ত পুলিশ সুপার মোহাম্মদ জাকারিয়া জানান, পরিস্থি নিয়ন্ত্রনে আনতে পুলিশ লাঠিচার্জ ও ১৫-১৬ রাউন্ড শর্টগানের ফাকাঁগুলি ছুড়ে। সংঘর্ষে ৬ পুলিশ সদস্য আহত হয়েছে। এ বিষয়ে এলাকাবাসী ও দায়ী প্রতিষ্ঠানের মালিকপক্ষকে নিয়ে জেলা প্রশাসন আলোচনায় বসবে। তবে মূলত তিতাস গ্যাস কোম্পানীকেই এ ব্যাপারে ব্যবস্থা নিতে হবে।

দ্যা গ্লোবাল নিউজ ২৪ ডটকম/রিপন/ডেরি ২৮ জুন ২০১৬

Related posts