November 21, 2018

গুপ্তহত্যাকারীদের হাত কেটে ফেলা হবে—বললেন প্রধানমন্ত্রী

ঢাকাঃ  প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বলেছেন, ১৯৭১ সালে গণহত্যা চালিয়েছিল তারা। আমরা ৪৪ বছর পরে হলেও গণহত্যাকারীদের বিচার করতে পেরেছি। খুনিদের আমরা বিচার করবোই। গুপ্তহত্যাকারীরা মনে করছে তারা পার পেয়ে যাবে। এর বিচার হবেই। পাই-পাই করে এসব খুনিদের বিচার করা হবে। পরিবারের উপর হামলাকারীদের একটি হাত কেটে ফেলা হবে।

বুধবার সকালে জাতীয় সংসদে নির্ধারিত প্রশ্নোত্তর পর্বে মহিলা আসনের ফজিলাতুন নেসা বাপ্পির লিখিত ও সম্পূরক প্রশ্নের জবাবে প্রধানমন্ত্রী এসব কথা বলেন।

প্রধানমন্ত্রী বলেন, ২০০১-২০০৬ মেয়াদে বিএনপি-জামায়াত জোট সরকার বাংলাদেশকে দুর্নীতির বিশ্ব চ্যাম্পিয়ান, সাংবাদিক নির্যাতনের ও জঙ্গিবাদের দেশ হিসেবে পরিচিত করেছিল। তারা মানুষ পুড়ানোর মত হত্যাকাণ্ডে মেতে উঠেছিল। মার সামনে ছেলেকে, ছেলের সামনে বাবাকে পুড়িয়ে হত্যা করেছে। আন্দোলনের নামে তারা ওই হত্যাকাণ্ড ঘটিয়েছে।

তিনি আরো বলেন, এখন তারা গুপ্তহত্যা করছে। পুলিশ অফিসার অত্যন্ত দক্ষতার সঙ্গে কাজ করছিল। কিন্তু তার স্ত্রীকে কুপিয়ে হত্যা করেছে। একই কায়দায় সব হত্যাকাণ্ড ঘটাচ্ছে। তারা গ্রেফতার হবেই। তারা কেন ভুলে যায়, তাদেরও পরিবার আছে। যারা পরিবারের ওপর হাত দেয়, তাদের একটি হাত কেটে ফেলে দেয়া হবে।

দ্যা গ্লোবাল নিউজ ২৪ ডটকম/রিপন/ডেরি ৮ মে ২০১৬

Related posts