November 20, 2018

গাইবান্ধায় মেয়েকে ধর্ষণের দায়ে বাবার যাবজ্জীবন কারাদন্ড

60

তোফায়েল হোসেন জাকির, গাইবান্ধা: গাইবান্ধায় মেয়েকে ধর্ষণের দায়ে খাজা মিয়া (৪৫) নামে এক বাবাকে যাবজ্জীবন কারাদন্ড দিয়েছেন আদালত। সোমবার বিকেল চার টার দিকে নারী-শিশু নির্যাতন দমন ট্রাইবুনালের বিচারক রতনেশ্বর ভট্রাচার্জ এ রায় দেন। এসময় তাকে ৫০ হাজার টাকা জরিমানা অনাদায়ে আরো এক বছর কারাদন্ড দেওয়া হয়।
রায় ঘোষণার পূর্ব থেকেই আসামি খাজা মিয়া গাইবান্ধা জেলা কারাগারে ছিলেন। তিনি জেলার সাদুল্যাপুর উপজেলার কিশামত দূর্গাপুর গ্রামের ফজশ উদ্দিনের ছেলে।

গাইবান্ধা জর্জ আদালতের জিআর ও শফিকুল ইসলাম জানান, ২০০৮ সালের ১৫ অক্টোবর দিবাগত রাত সাড়ে নয়টার দিকে মেয়েটি শয়ন ঘরে ঘুমিয়ে পড়ে। এ সময় তার বাবা খাজা মিয়া ওই ঘরে ঢুকে তাকে ধর্ষণ করেন।

এ ঘটনার পরের দিন ১৬ অক্টোবর সকাল সাড়ে নয়টার দিকে মেয়েটি বাদি হয়ে খাজা মিয়ার বিরুদ্ধে নারী নির্যাতন আইনে সাদুল্যাপুর থানায় মামলা করেন। মামলার তদন্ত কর্মকর্তা তদন্ত শেষে খাজা মিয়ার বিরুদ্ধে আদালতে অভিযোগপত্র (চার্জশিট) দাখিল করেন। মামলাটির দীর্ঘ শুনানীকালে আদালতে ১১ জন স্বাক্ষী তাদের স্বাক্ষ্য প্রদান করেন।

গাইবান্ধার নারী-শিশু নির্যাতন দমন ট্রাইবুনালের বিচারক রতনেশ্বর ভট্রাচার্জ আসামি খাজা মিয়াকে যাবজ্জীবন কারাদন্ড ও ৫০ হাজার টাকা জরিমানা, অনাদায়ে আরো এক বছর কারাদন্ড প্রদান করেন। রাষ্ট্রপক্ষে মামলা পরিচালনা করেন এসিসট্যান্ট পাবলিক প্রসিকিউটার (এপিপি) আব্দুল্যাহ কনক ও শিউলি বেগম।

 

Related posts