November 20, 2018

এ বছর ভারতে ফিরছেন না জাকির নায়েক

দিল্লিঃ  ভারতের ইসলামি বক্তা জাকির নায়েক এ বছর ভারতে ফিরছেন না। আজ শুক্রবার সকালে স্কাইপের মাধ্যমে এক সংবাদ সম্মেলনে তিনি এ কথা বলেছেন বলে ভারতের বার্তা সংস্থা পিটিআইয়ের খবরে বলা হয়েছে।

জাকির নায়েক বর্তমানে সৌদি আরব অবস্থান করছেন।

ঢাকার গুলশানে একটি রেস্তোরাঁয় ভয়াবহ জঙ্গি হামলার পর হামলাকারীদের দুজনের ফেসবুক থেকে জানা যায়, তাঁরা জাকির নায়েকের বক্তব্যে উদ্বুদ্ধ হয়েছিলেন। ফলে ইসলামিক রিসার্চ ফাউন্ডেশনের প্রতিষ্ঠাতা জাকির নায়েকের মালিকানাধীন পিস টিভি ও তাঁর ভূমিকা নিয়ে বিতর্ক ওঠে। এ টিভি চ্যানেলে দীর্ঘ সময় ধরে জাকির নায়েকের ধর্মীয় বক্তৃতা প্রচারিত হয়। বাংলাদেশে পিস টিভির সম্প্রচার বন্ধের ঘোষণা দেয় সরকার। ভারতেও জাকির নায়েকের বিরুদ্ধে কেন্দ্রীয় সরকারসহ বিভিন্ন পর্যায় থেকে তদন্ত শুরু হয়।

সম্প্রতি দ্য হিন্দুর খবরে বলা হয়, তদন্তের পর ভারতের ইসলামি বক্তা জাকির নায়েকের বিরুদ্ধে অভিযোগ আনার মতো কোনো প্রমাণ পায়নি মহারাষ্ট্র প্রদেশের গোয়েন্দা সংস্থা। তাঁর বক্তব্যের মধ্যে সন্ত্রাসবাদ উসকে দেওয়ার মতো কোনো প্রমাণ পাওয়া যায়নি বলে জানিয়েছে তারা। ফলে দেশে ফেরার পর জাকির নায়েককে গ্রেপ্তার করার কোনো সুযোগ নেই বলে উল্লেখ করেছে গোয়েন্দা সংস্থা সূত্র।

সৌদি আরবের মদিনা থেকে আজ সকালে স্কাইপে সংবাদ সম্মেলনে জাকির নায়েক বলেন, ‘জ্ঞাতসারে আমি কোনো সন্ত্রাসবাদীর সঙ্গে দেখা করিনি। কিন্তু কেউ আমার সামনে এসে ছবি তুলতে চাইলে, আমি হাসি দিই। কিন্তু যে বা যারা ছবি তুলেছে, আমি তাদের চিনি না।’

ভারতের এই ইসলাম প্রচারক বলেন, এটা ‘ভুল তথ্য’ যে তিনি আত্মঘাতী বোমা হামলা সমর্থন করেন। জাকির নায়েক বলেন, এটা ‘ইসলামবিরোধী’। তাঁর বক্তব্য অন্যদের সন্ত্রাসী কর্মকাণ্ডে উদ্বুদ্ধ করে—এমন অভিযোগ নাকচ করে দিয়ে জাকির নায়েক বলেন, ‘আমার বক্তব্য প্রসঙ্গের বাইরে নিয়ে যাওয়া হয়…আমি শান্তির দূত।’প্রথমআলো

Related posts