April 21, 2019

এ কোন কাঠগড়ায় শচীন?

কিংবদন্তি শচীন টেন্ডুলকার

স্পোর্টস ডেস্ক:  না না শিরোনাম দেখে চলকে ওঠার কিছু নেই। কিংবদন্তি শচীন টেন্ডুলকার কোন অপরাধ করেননি। ভক্তদের কাটগড়ায় দাঁড়িয়েছিলেন তিনি। ভক্তদের নানা প্রশ্নের উত্তরে বের হয়ে আসে এই কিংবদন্তির জীবনের অনেক অজানা কথা।

সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম টুইটারের ‘আস্ক এসআরটি’ হ্যাশট্যাগে শুক্রবার শচীন ভক্তদের একটার পর একটা প্রশ্ন আসতে থাকে। আর শচীনও উত্তর দিতে থাকেন। কি খেতে ভালোবাসে, কি করতে ভালোবাসে, অবসরে কি করেন, সেরা মুহূর্ত কোনটা এত শত প্রশ্ন করেন ভক্তরা।।

শচীনও জানান, মায়ের হাতের রান্না খেতে ভালবাসেন তিনি। অবসরে ছেলের বন্ধুদের সঙ্গে ক্রিকেট খেলেন। সেরা মুহূর্ত ২০১১-র ২ এপ্রিলের সেই রাত।

তিনি লেখেন, ‘কোনও সন্দেহ নেই ওয়াংখেড়েতে আমার সেরা মুহূর্ত বিশ্বকাপ ফাইনাল। আমার স্ত্রী তখন স্টেডিয়ামের বাইরে। সবাই গাড়িতে আমার স্ত্রীকে দেখতে পেয়ে বলতে থাকে, এই গাড়ির উপর উঠো না। কিন্তু অঞ্জলি মাঠের সামনে নামতেই সবাই গাড়ির উপর উঠে গিয়ে সেলিব্রেট করতে থাকল।’

অবসর নেওয়ার ঠিক পরের দিনের রুটিন কি ছিল? বাড়িতেই কাটিয়েছিলেন না পরিবারকে নিয়ে বাইরে কোথাও ঘুরতে গিয়েছিলেন? শচীনের উত্তর, ‘দিনটা দারুণ ছিল। অবসর নেওয়ার পরের দিন আমি চা বানিয়েছিলাম। তার পর আরাম করে সেটায় চুমুক দিয়েছিলাম।’

শচীন আরো জানান, ছোটবেলা থেকে ক্রিকেট ব্যাট ছাড়াও টেনিসের র্যাইকেট ছিল তার অন্যতম ভালবাসার জিনিস। তিনি লেখেন, ‘ক্রিকেট ছাড়া অবশ্যই আমার পছন্দ টেনিস। যখন ছোট ছিলাম তখন বাড়ির ছাদে উঠে দাদার সঙ্গে খেলতাম। এক হাতে আমার ক্রিকেট ব্যাট থাকত। আর এক হাতে টেনিসের র‍্যাকেট। কয়েকটা বল ব্যাট দিয়ে মারতাম। কয়েকটা র‍্যাকেট দিয়ে।’

দ্যা গ্লোবাল নিউজ ২৪ ডটকম/০৯ এপ্রিল ২০১৬/রিপন ডেরি

Related posts