November 18, 2018

‘এল ক্লাসিকো’তে ঘরের মাঠে চুরমার রিয়াল

ঘরের মাঠে বার্সার কাছে চুরমার রিয়াল

স্পোর্টস ডেস্ক  ‘এল ক্লাসিকো’ মানেই লিওনেল মেসি বনাম ক্রিস্টিয়ানো রোনালদোর লড়াইয়ের সরাসরি ‘অ্যাকশন’। গত ছয় মৌসুমে এটাই ছিলো চেনা ছবি। কিন্তু ‘বার্নাব্যু’র মহারণে বার্সেলোনার ‘রাজপুত্র’ আর রিয়াল মাদ্রিদের ‘মিসাইল’ নয়, লড়াই হলো দুদলের ‘ত্রিফলার’। মেসি-নেইমার-সুয়ারেজ বনাম রোনালদো-বেল-বেনজামা। আর সেই যুদ্ধে ঘরের মাঠে বার্সার কাছে চুরমার রিয়াল। পাসিং ফুটবল খেলে গ্যালাকটিকোদের ৪-০ গোলে হারিয়েছে কাতালানরা।

ফর্মের বিচারে মৌসুমের প্রথম ‘এল ক্লাসিকো’য় এগিয়ে ছিল ‘বার্সেলানোর ত্রিফল বোমা’ই। সেটা মাঠেও প্রমাণ দিলেন তারা। প্রথম একাদশে মেসি না থাকলেও গোলের সূচনা এমএসএন বাহিনীর একজন দিয়েই। খেলার ১১ মিনিটে রিয়ালের জালে বল জড়িয়ে বার্নাব্যুকে স্তব্ধ করে দেন লুইস সুয়ারেজ। সার্জিও রবার্তোর ডিফেন্সচেরা পাস থেকে গোল করেন উরুগুয়ান তারকা। পরে আরো একটি গোল করেছেন তিনি।

ম্যাচের শুরু থেকেই রিয়ালকে ঠেসে ধরে বার্সা। প্রথম গোল পাওয়ার পর স্বাগতিকদের ওপর আরো চেপে বসে তারা। প্রথমার্ধ শেষ হওয়ার ছয় মিনিট আগে কাতালানদের ২-০ গোলে লিড এনে দেন নেইমার। ম্যাচের প্রথম দিকে একটি সুযোগ নষ্ট করলেও আন্দ্রেস ইনিয়েস্তার ক্রস থেকে ৩৯ মিনিটে রিয়ালের জালে বল জড়ান ব্রাজিলিয়ান ‘ওয়ান্ডার কিড’।

দুই গোলে এগিয়ে থাকা বার্সেলোনা দ্বিতীয়ার্ধে মাঠে নেমে প্রতিপক্ষের ওপর আরো চাপ বাড়ান। রিয়াল কোচ রাফায়েল বেনিতেজ সেরা একাদশ মাঠে নামালেও তাদের খুঁজে পাওয়া যায়নি। এর পরও যে দু-তিনটি সুযোগ তারা তৈরি করেছিল তা নস্যাৎ করে দেন বার্সা গোলরক্ষক ব্রাভো। এর মধ্যে ৫৩ মিনিটে নেইমারের চোখ জুড়ানো ব্যাকহিল থেকে গোল করেন ইনিয়েস্তা। অধিনায়ক হিসেবে বার্নাব্যুর প্রথম ক্লাসিকোটা স্মরণীয় করে রাখলেন তিনি।

ম্যাচে একবারের জন্যও তাল হারায়নি বার্সা। এর মধ্যে ৫৭ মিনিটে ইভান রাকিটিচের জায়গায় দুই মাস পর মাঠে নামেন মেসি। তাতে আরো গতি পায় সফরকারীরা। খেলার ছলে ৭৪ মিনিটে হালি পূরণ করে তারা। জর্দি আলবার ক্রস থেকে নিজের দ্বিতীয় গোল করেন সুয়ারেজ।

বার্সার অবিরাম চাপে এমনিতেই পা চলছিল না রিয়ালের। এর মধ্যে তাদের জন্য মরার ওপর খাড়ার ঘা হয়ে আসে ইসকোর লাল কার্ড। ৮৪ মিনিটে নেইমারকে ক্ষমার অযোগ্য এক ফাউল করে সরাসরি মাঠে বাইরে চলে যেতে হয় ইসকোকে। শেষ দিকে দুটি সম্ভাবনাময় আক্রমণ করলেও ব্রাভোকে টপকাতে পারেননি রোনালদো। আর এতেই রিয়ালের মাঠ থেকে অসাধারণ এক জয় নিয়ে ফেরে বার্সা।

এই জয়ে রিয়ালের চেয়ে ৬ পয়েন্ট এগিয়ে গেল শীর্ষে থাকা বার্সা। ১২ ম্যাচে ১০ জয় আর দুই হারে কাতালানদের পয়েন্ট ৩০। সমান সংখ্যক ম্যাচে ৭ জয়, তিন ড্র ও দুই হারে গ্যালাকটিকোদের পয়েন্ট ২৪।

প্যারিসের আতঙ্ক ছিল ‘এল ক্ল্যাসিকো’তেও। তাই মাদ্রিদের ম্যাচটি নিরাপত্তার চাদরেই ঘেরা ছিল। পুরো ম্যাচের পাহাড়ায় ছিল ২৪শ’ পুলিশ।

মুখোমুখি লড়াইতে বার্সার চেয়ে এখনো কিছুটা এগিয়ে রইলো রিয়াল। এবার সহ মোট ১৭১ ‘এল ক্ল্যাসিকো’তে ৭১ বার রিয়াল আর ৬৮ বার জয় পেলো বার্সা। আর ৩২টি ম্যাচ হয়েছে ড্র। আজকের ম্যাচ হয়তো নিধারণ করে দিতে পারে লা লিগার শিরোপাও। কারণ ‘এল ক্লাসিকো’ জেতা দলের শিরোপা জেতার সম্ভাবনা বেশি থাকে। যার হার ৬৬ দশমিক ৭।

দি গ্লোবাল নিউজ ২৪ ডট কম/রিপন/ডেরি

Related posts