November 16, 2018

ইলিশের বাড়ী ”চাঁদপুর” দেশ ছাড়িয়ে সারা বিশ্ব পরিচিত — অতিরিক্ত সচিব মোয়াজ্জেম হেসেন

1এ কে আজাদ, চাঁদপুর : জনপ্রশাসন মন্ত্রনালয়ের অতিরিক্ত সচিব মোঃ মোয়াজ্জেম হেসেন চাঁদপুর অনলাইন ইলিশ বাজার ও চাঁদপুরের পর্যটন কেন্দ্র বড়স্টেশন তিন নদীর মোহনা মুলহেড পরিদর্শন করেছেন। এ সময় জেলা প্রশাসক আব্দুস সবুর মন্ডল ও অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক মোঃ মাসুদ হোসেন, মৎস বনিক সমিতির সাবেক সাধারন সস্পাদক ইদ্রিস গাজী, মৎস ব্যাবসায়ী ও আ’লীগ নেতা রফিকুল ইসলাম ভূঁইয়াসহ অন্যান্যা মৎস ব্যবসায়ীরা উপস্থিত ছিলেন। জেলা প্রশাসককে সাথে নিয়ে ইলিশের বাড়ী চাঁদপুর তথা দেশের সর্ববৃহৎ ইলিশের আড়ৎ চাঁদপুর বড়স্টেশন মাছ ঘাটে ঘুরে-ঘুরে চাঁদপুরের রূপালী ইলিশ দেখেন তিনি। এর পর তিনি অনলাইন ইলিশ বাজার পরিদর্শন করেন পরে পর্যটন কেন্দ্র বড়স্টেশন তিন নদীর মোহনা মুলহেড পরিদর্শন করেছেন । অনলাইনে ইলিশ বিক্রির পদ্ধতি দেখে অবিভুত হন তিনি। এসময় সচিব মোঃ মোয়াজ্জেম হেসেন বলেন, সরকার এমনিতেই চাঁদপুরকে ’সিটি অব হিলশা” ঘোষনা দেন নাই, সত্যিই চাঁদপুর একটি ব্র্যাডিং জেলা” ইলিশের বাড়ী চাঁদপুর” এখন দেশ ছাড়িয়ে সারা বিশে^ পরিচিত। ইলিশের পোনা জাটকা নিধনে প্রশাসনের কড়া নজরদারীর ফসল হচ্ছে ইলিশের আমদানি বৃদ্ধি। সুধু তাই নয় বাংলাদেশি পণ্য হিসেবে জামদানির পর আন্তর্জাতিক ভাবে চাঁদপুরের ইলিশ জিআই স্বীকৃতি পেয়েছে। এই স্বীকৃতি চাঁদপুরের প্রশাসনসহ সকল জনগনের অনেক বড় প্রাপ্তি। আশা করছি আগামী এক সপ্তাহের মধ্যে মৎস্য অধিদপ্তরের হাতে ইলিশের জিআই নিবন্ধন সনদ তুলে দেয়া হবে। ওয়ার্ল্ড ফিশের পর্যবেক্ষণ অনুযায়ী বিশ্বের ৬৫ শতাংশ ইলিশ মাছ উৎপাদিত হয় আমাদের দেশে। ইলিশের উৎপাদন ক্রমাগতই বাড়ছে। এই ইলিশ উৎপাদনের পিছনে জাটকা নিধন প্রতিরোধে প্রশাসনের কঠোর নজরদারি এবং জনগনের সচেতনতাই মূল কারন বলে আমি মনে করি। বড়স্টেশন মূলহেডে গিয়ে তিনি ত্রি-নদীর মোহনা দেখে পর্যটনের অপার সম্ভাবনার এক নাম চাঁদপুর এই উক্তিটি তিনি করেন। এসময় জেলা প্রশাসক আব্দুস সবুর মন্ডল বলেন, চাঁদপুরের রাজনৈতিক, সামাজিক, সাংবাদিক, সাংস্কৃতিকসহ সর্বস্তরের মানুষকে নিয়ে আমি চেষ্টা করছি। আপনাদের সহযোগীতা পেলে অতি দ্রুত চাঁদপুরকে পর্যটন নগরী হিসেবে ঘোষনা দিতে পারবো। এসময় অতিরিক্ত সচিব মোঃ মোয়াজ্জেম হেসেন এব্যাপারে সর্ব প্রকার সহযোগীতার আশ্বাস প্রদান করেন।

Related posts