September 23, 2018

আমেরিকায় বিকিরণে মারা গেছে ৩৩ হাজার পরমাণু-কর্মী

আমেরিকার দ্বিতীয় মহাযুদ্ধ এবং শীতল যুদ্ধে জয়ী হওয়ার তৎপরতায় মারা গেছে ৩৩ হাজারের বেশি পরমাণু কর্মী। আমেরিকার মাটিতেই মাত্রাতিরিক্ত বিকিরণের শিকার হয়ে গত সাত দশকে মারা গেছে এ সব হতভাগ্য পরমাণু কর্মী।

এক বছর ধরে চালানো অনুসন্ধান প্রতিবেদনে এ তথ্য ওঠে এসেছে। আমেরিকার ১৫টি অঙ্গরাজ্যে ৩০টি দৈনিক প্রকাশনার সঙ্গে জড়িত ম্যাককেলটচি নামের একটি সংস্থা এ প্রতিবেদন তৈরি করেছে।

এতে বলা হয়েছে, সাত দশকে অন্তত ৩৩ হাজার, চারশ’ ৮০ জন পরমাণু কর্মী বিকিরণের কারণে মারা গেছে। এবারই প্রথম এ মৃত্যু সংখ্যা প্রকাশ করা হলো। ইরাক ও আফগানিস্তানে মার্কিন সেনাদের মৃত্যু সংখ্যা থেকে এটি চারগুণ বেশি। একে উদ্বেগজনক হিসেবে অভিহিত করেছে ম্যাককেলটচি।

অনুসন্ধানী প্রতিবেদন তৈরির জন্য তথ্য স্বাধীনতার আওতায় মার্কিন শ্রম দফতর থেকে এ সংক্রান্ত সাত কোটির বেশি ডাটাবেজ নেয়া হয়েছে। আর এতে মার্কিন পরমাণু অস্ত্র স্থাপনাগুলোতে চড়া মানবিক মূল্য দেয়ার বিষয়টি প্রকাশ পেয়েছে।

মার্কিন পরমাণু অস্ত্রভাণ্ডার নির্মাণে এক লাখ সাত হাজার তিনশ’ ৯৩ কর্মী জড়িত ছিলেন। ডাটাবেজ থেকে পাওয়া তথ্যে দেখা যায়, গত সাত দশকে ক্যান্সারসহ অন্যান্য মারাত্মক রোগে ভুগেছেন তারা। অনুসন্ধানী প্রতিবেদনটি তৈরিতে মার্কিন কেন্দ্রীয় সরকারের এ সংক্রান্ত তথ্য ব্যবহার করা হয়েছে। এ ছাড়া, একশ’ পরমাণু কর্মী, সরকারি কর্মকর্তা, বিশেষজ্ঞ এবং মানবাধিকার কর্মীর সাক্ষাৎকারও গ্রহণ করা হয়েছে।

আমেরিকা যখন নিজের পুরানো পরমাণু অস্ত্রভাণ্ডার উন্নয়নের প্রস্তুতি নিয়েছে তখন এ প্রতিবেদন প্রকাশিত হলো। আগামী ৩০ বছরে এ অস্ত্রভাণ্ডারের উন্নয়ন ঘটানো হবে এবং এ খাতে ব্যয় হবে এক ট্রিলিয়ন ডলারেরও বেশি। তার জন্য আবার নতুন করে কি পরিমাণে মানবিক মূল্য দিতে হবে সে বিষয়ে এখনো কোনো আভাসই দেয়া হয় নি।

Related posts