November 17, 2018

আবারও তুরস্ককে আক্রমণ করলো পুতিন!

রাশিয়ার জঙ্গিবিমান ভূপাতিত করার ঘটনায় রাশিয়ার প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির পুতিন ফের ক্রোধান্বিত হয়েছেন এবং অমার্জিত ভাষায় তুরস্ককে আক্রমণ করেছেন।

সিরিয়া-তুরস্কের সীমান্তের ঘটনা ছিল ‘বৈরি কর্মকাণ্ড’ কিন্তু রাশিয়া ‘পিছু হটার দেশ নয়,’ বার্ষিক সংবাদ সম্মেলনে বলছিলেন পুতিন।‘তুর্কিরা কিছু কিছু ক্ষেত্রে আমেরিকাকে লেহন করার সিদ্ধান্ত নিয়েছে,’ বলছিলেন পুতিন।

তুরস্ক ইসলামীকরণে দিকে ঝুঁকে পড়েছে যা আতাতুর্ককে মাটি দেয়ার (সমান)।’তুরস্কের প্রতিষ্ঠাতা মোস্তফা কামাল আতাতুর্ক দেশটিতে কঠোর ধর্মনিরপেক্ষতা প্রবর্তন করেন, যেখান দৃশ্যত দূরে সরে যাচ্ছে তুরস্কের ক্ষমতাসীন একে পার্টি।
সরাসরি টিভিতে সম্প্রচারিত ভাষণে পুতিন আরো বলেন, তুরস্ক সরকারের সাথে সম্পর্ক মেরামত করার আর কোনো সুযোগ নেই।

পুতিন বলেন, সিরিয়ায় তুর্কি বংশোদ্ভূত তুর্কমেন বিদ্রোহীরা যদি রাশিয়ার বিমান হামলার শিকার হয়ে থাকে তবে তুরস্কের কর্মকর্তারা তাদের উদ্বেগ জানিয়ে রাশিয়াকে একটি ফোন দিতে পারত।

তিনি বলেন, তা না করে রাশিয়ার জঙ্গিবিমান ভূপাতিত করে তুরস্ক কিছুই অর্জন করতে পারেনি।
২০০০ সাল থেকে এই নিয়ে তৃতীয় মেয়াদে প্রেসিডেন্টের দায়িত্ব পালন করছেন পুতিন। তার শাসনে নাগরিক স্বাধীনতা সঙ্কুচিত হয়ে পড়েছে বলে সমালোচকরা বলছেন।

তবে এখনো বিশ্বের সবচেয়ে ক্ষমতাধর রাজনীতিকদের অন্যতম তিনি।ভাষণে পুতিন বলেন, সামনের বছরগুলোতে রাশিয়ার অর্থনৈতিক প্রবৃদ্ধি বাড়বে।

দ্যা গ্লোবাল নিউজ ২৪ ডট কম/মেহেদি/ডেরি

Related posts