November 13, 2018

আইপিএলের ফাইনালে হায়দরাবাদ

আইপিএলে

আইপএলের দ্বিতীয় কোয়ালিফায়ারে গুজরাট লায়ন্সের বিপক্ষে জিতে ফাইনাল খেলা নিশ্চত করেছে সানরাইজার্স হায়দরাবাদ। হায়দরাবাদের জয়ে সামনে থেকে নেতৃত্ব দেন অধিনায়ক ডেভিড ওয়ার্নার। তার উইলো থেকে আসে ৫৮ বলে ৯৩ রানের ঝকঝকে একটি ইনিংস।
আজ শুক্রবার দিল্লীর ফিরোজশাহ কোটলা স্টেডিয়ামে গুজরাটের দেয়া ১৬৩ রানের টার্গেট তাড়া করে ৪ বল বাকি থাকতেই ৬ উইকেট হারিয়ে জয়ের বন্দরে পৌছে যায় হায়দরাবাদ। রান তাড়া করতে গিয়ে মাত্র ৬ রানে ইনফর্ম ওপেনার শেখর ধাওয়ানকে হারায় তারা। এরপর অন্য ব্যাটসম্যানরা যাওয়া আসার মিছিলে থাকলেও এক প্রান্ত আগলে বোলাদের উপর ঝড় বইয়ে দেন ওয়ার্নার। ৩ ছক্কা আর ১১ চারে সাজানো তার ইনিংসটিই ফাইনালে পৌছে দেয় দলকে। শেষ দিকে বিপুল শর্মার ১১ বলে ২৭ রান গুরুত্বপূর্ণ ভুমিকা রাখে দলের জয়ে। গুজরাটের পক্ষে শিভিল কৌশিক ও ডোয়াইন ব্রাভো দুটি করে উইকেট নেন।
এর আগে টস জিতে সুরেশ রায়নার দলকে ব্যাটিংয়ে পাঠান হায়দরাবাদ অধিনায়ক ডেভিড ওয়ার্নার। ব্যাট করতে নেমে ৭ উইকেটে ১৬২ রান সংগ্রহ করে গুজরাট লায়ন্স। প্রথম ওভারেই আঘাত হানেন পুরো টুর্নামেন্ট জুড়ে দারুণ বল করা ভুবনেশ্বর কুমার। ব্যক্তিগত ৫ রানে ফিরে যান ওপেনার একলব্য দ্বিবেদী। এরপর গুজরাট অধিনায়ক সুরেশ রায়নাকে ফেরান মুস্তাফিজের বদলি হিসেবে খেলা নিউজিল্যান্ডের পেসার ট্রেন্ট বোল্ট।

তৃতীয় উইকেটে দিনেশ কার্তিককে নিয়ে ব্রেন্ডন ম্যাককালাম বড় জুটি গড়ার চেষ্ট করলেও সফল হননি। কার্তিক ১৯ বলে ২৬, ম্যাককালাম ২৯ বলে ৩২ রান করেন। তবে অস্ট্রেলিয়ান ব্যাটসম্যান অ্যারন ফিঞ্চ খেলতে থাকেন ঝড়ো গতিতে। বেন কাটিংয়ের বলে বোল্ড হওয়ার আগে ৩২ বলে করেন ৫০ রান। শেষ দিকে লোয়ার অর্ডারের ব্যাটসম্যানদের সম্মিলিত প্রচেষ্টায় দলের রান গিয়ে দাড়ায় ১৬২ তে।
হায়দরাবাদের পক্ষে আজ সেরা বোলার ছিলেন ভুবনেশ্বর কুমার। ৪ ওভারে মাত্র ২৭ রানে তার শিকার ২ উইকেট। বেন কাটিং ৩ ওভার বল করে ২০ রানে নেন ২ উইকেট। এছাড়া ৪ ওভারে ৩৯ রান দিয়ে ১টি উইকেট নিয়েছেন বোল্ট। ২১ রানে ১ উইকেট নিয়েছেন বিপুল শর্মা।
হালকা চোটের কারণে এদিন মাঠে নামতে পারেননি দলের মূল ভরসা মোস্তাফিজুর রহমান। পুরো টুর্নামেন্ট জুড়ে মোস্তাফিজ ছিলেন ডেভিও ওয়ার্নারের তুরুপের তাস। প্রতিটি ম্যাচেই ডেথ ওভারে তার নিয়ন্ত্রিত বোলিং সহজ করেছে প্রতিপক্ষের রানের চাকা থামাতে।

Related posts