September 23, 2018

আঁখি দেয়নি ভালবেসে ফাঁকি<<এলাকায় চাঞ্চল্যের সৃষ্টি!

ইখতিয়ার উদ্দীন,
নওগাঁ থেকেঃ
প্রেম মানে না কোন বাঁধা, প্রেমের নাই কোন সীমানা…। প্রেম আছে বলেই পৃথিবী এতো সুন্দর। পৃথিবীতে সুখ বলে- যদি কিছু থেকে থাকে, এর নামই ভালোবাসা, এর নামই প্রেম। আঁখি দেয়নি তাইতো ভালবেসে ফাঁকি। নওগাঁর পত্নীতলায় প্রেমের টানে এক প্রেমিক যুগলের বাড়ি ছাড়ার অভিযোগে এলাকায় চাঞ্চল্যের সৃষ্টি হয়েছে।

জানা যায়, ঘটনাটি উপজেলার নজিপুর ইউনিয়নের রঘুনাথপুর (যুগিবাড়ি) গ্রামের। ওই গ্রামের আনিছুর রহমানের কন্যা ও গগনপুর উচ্চ বিদ্যালয়ের সদ্য এস.এস.সি ফলপ্রাপ্ত শিক্ষার্থী মোসা: আঁখি আক্তার (১৬) ও একই গ্রামের মোজাফফর হোসেনের পুত্র আবু রায়হান (২৬) এর হাত ধরে পূর্ব পরিকল্পনা মোতাবেক গত ২৭মে শুক্রবার রাতে আকাশের ঝড়-বৃষ্টিকে উপেক্ষা করে অজানা প্রেমের পথে পাড়ি দেয়।

পরে তাদের উভয় পরিবারের সদস্যরা শনিবার ২৮মে তাদের আত্মীয়-স্বজন বাড়িতে খোঁজ-খবর নেয়। তবুও কোন হুদিস  মিলেনি। অতঃপর ২৯মে হতে এলাকায় গুঞ্জন শুরু হয়। অনুসন্ধানে আরো জানা যায়, আঁখি আক্তারের বিয়ের প্রস্তুতির জন্য ঘটক মারফতে কথা চলছিল পারিবারিকভাবে। এমন বিষয়টি টের পেয়ে প্রেমিকা আঁখি ভালবাসার পাত্র আবু রায়হানকে তাইতো ফাঁকি দেননি।

আবু রায়হান রাজধানী ঢাকায় চাকুরি করতেন। এই সুযোগে চাকুরি হতে ছুটিতে এসে প্রেমিক রায়হানের হাত ধরে অজানা পথে পাড়ি দেয় আঁখি।

আঁখির একাধিক সহপাঠীরা জানায়, রায়হান ভাইয়ের সাথে প্রায় ২বছর ধরে মোবাইল ফোনে প্রেম করে আসছেন।

স্থানীয় ইউপি সদস্য ফজলুর রহমান ঘটনাটির সত্যতা নিশ্চিত করে জানান, আঁখির বিয়ে দেওয়ার কথা-বার্তা ঘটক মারফতে চলছিল।

দ্যা গ্লোবাল নিউজ ২৪ ডটকম/রিপন/ডেরি ২৯ মে ২০১৬

Related posts