November 21, 2018

অসাবধানতায় গিলেছিলেন আস্ত চিরুনী!

রুপচর্চাপ্রীতি পৃথিবীর প্রায় সব নারীরই স্বাভাবিক বৈশিষ্ঠ। আর এ কারণেই হাতের ছোট ব্যাগটিতে সবসময়ই ছোট চিরুনী শোভা পায় প্রায় তাদের। তবে তুরস্কের চুল আঁচড়ে নয় অসাবধানতাবশত সেই চিরুনীই গিলে হাসপাতালে জরুরী অস্ত্রপচার করাতে হয়েছে এক তুর্কি নারীর।

রোববার তুরস্কের আন্তালিয়া শহরের এক হাসপাতালে ডাক্তাররা পাকস্থলীর প্রায় কাছাকাছি চলে যাওয়া ২০ সেন্টিমিটার লম্বা চিরুনী উদ্ধার করেন নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক নারীর পেট থেকে।

হাসপাতালে দেয়া বিবরণ অনুযায়ী, সকালে নির্ধারিত সময়ে তার প্রয়োজনীয় ওষুধ খেতে গিয়ে গলায় আটকে গিয়েছিলো ক্যাপসুল প্রকৃতির ঔষধটি। এরপর উপায়ন্তর না পেয়ে হাতের কাছে থাকা ছোট চিরুনীটি দিয়ে গলায় আটকে যাওয়া ওষুধকে ধাক্কা দেয়ার চেষ্টা করেন এই নারী। এসময়ই অসাবধানতায় চিরুনীটি পড়ে যায় গলার ভিতর। টেনে ধরার আগেই ওষুধসহ গলা বেয়ে তা চলে যায় পেটের ভিতর।

অসহ্য যন্ত্রণায় চিৎকার জুড়ে দিলে অ্যাম্বুলেন্স ডেকে হাসপাতালে পাঠান প্রতিবেশীরা। সেখানে প্রায় এক ঘণ্টার অস্ত্রপচারে ডাক্তাররা বের করে আনেন আস্ত একটি চিরুনী। রোগীর সুস্থ্যতা নিশ্চিত হবার পর রসিক ডাক্তাররা আবার চিরুনীর ছবিও প্রকাশ করেন সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেইসবুকে। তবে রোগীর নাম প্রকাশ করেননি তারা।

দি গ্লোবাল নিউজ ২৪ ডট কম/রিপন/ডেরি

Related posts