November 15, 2018

অভিনয়ে সুযোগ করে দেয়ার কথা বলে মডেলকে ধর্ষণ

ঢাকাঃ উচ্চ শিক্ষিত তরুণী। অভিনয়ের শখ, অনেক খ্যাতি আর নাম কামানোর লোভে ফাঁদে পা দিলেন এক ফটোগ্রাফারের; প্রথম প্রথম মডেলিং এ এসে অনেক মেয়েই যেমনটি করে।

এই ঘটনাটিও আলাদা কিছু নয়। সিনেমা ও মডেলিংয়ে সুযোগ করে দেয়ার প্রতিশ্রুতি দিয়ে ওই তরুণীকে ধর্ষণ করেছেন টলিউডের এক উঠতি অভিনেতা কাম ফটোগ্রাফার।

অনিকেত দাঁ নামে ওই অভিনেতাকে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ। তাকে ৬ আগস্ট পর্যন্ত পুলিশ হেফাজতে রাখার নির্দেশ দিয়েছেন আদালত।

টালিগঞ্জ পাড়ায় সিনেমায় সুযোগ পাওয়ার জন্য অন্য কোনও পেশায় যাননি উচ্চশিক্ষিতা ওই তরুণী৷ সংস্কৃতে এমএ পাস করে ব্যারাকপুরের বাসিন্দা ওই তরুণী টালিগঞ্জের কাছে এনএসসি বোস রোডে পেয়িং গেস্ট হিসেবে থাকতে শুরু করেন।

মডেলিংয়েও খুব আগ্রহ। গত বছরের নভেম্বরে তার সঙ্গে এক অনুষ্ঠানে আলাপ হয় উঠতি অভিনেতা অনিকেতের। অনিকেত ফটোগ্রাফিও করেন জেনে তাকে মডেলিং ও অভিনয় করার ইচ্ছার কথা জানান ওই তরুণী।

আর এই সুযোগ লুফে নেন অনিকেত। বিভিন্ন ক্ষেত্রে সুযোগ করে দেয়ার আশ্বাস দিয়ে মেলামেশা শুরু হয়। সেটা এক সময় শরীরে পৌঁছায়।

পুলিশ জানিয়েছে, অনিকেতও এনএসসি বোস রোডেই পেয়িং গেস্ট হিসেবে থাকেন। মাঝে মধ্যেই বছর তেইশের ওই তরুণীকে বাসায় ডেকে পাঠাতেন। প্রথমে কয়েকবার মডেলিংয়ের জন্য নানা পোজ দিতে বলে ছবি তোলেন। এরপর কয়েকবার তাকে ধর্ষণও করেন।

পুলিশের কাছে ওই তরুণী অভিযোগ করেন, সিনেমায় সুযোগ পেতে হলে এ রকম শারীরিক সম্পর্ক করতে হয় বলেও তাকে বুঝিয়েছিলেন অনিকেত। কিন্তু মন থেকে এই সম্পর্ক মেনে নিতে পারেননি ওই তরুণী। আপত্তি করতে গেলে অনিকেত তার ছবি দিয়ে ব্ল্যাকমেইল করার হুমকি দেয়।

গত বৃহস্পতিবার রাত ২টার দিকেও তাকে ডেকে এনে অনিকেত অশালীন আচরণ করেন বলে পুলিশকে জানিয়েছেন ওই তরুণী। শুক্রবার রাত সাড়ে ১১টার দিকে রিজেন্ট পার্ক থানায় গিয়ে অনিকেতের বিরুদ্ধে অভিযোগ দায়ের করেন তিনি৷

শনিবার ভোরে এনএসসি রোডের বাড়িতে ঢোকার সময় অনিকেতকে গ্রেপ্তার করে পুলিশ৷ তিনি দোষ স্বীকারও করেছেন।

অবশ্য শোবিজ দুনিয়ায় এই ধরনের ঘটনা নতুন নয়। বলিউডের বিখ্যাত চিত্র পরিচালক মধুর ভাণ্ডারকর, অভিনেতা শক্তি কাপুর ও আদিত্য পাঞ্চোলির বিরুদ্ধেও কয়েকজন উঠতি নায়িকা অতীতে একই ধরনের অভিযোগ এনেছেন।

Related posts